Latest News

ভারতে এক বছরে দেড় হাজারের বেশি বাঘ মেরেছে ব্রিটিশরা! প্রকাশ্যে চাঞ্চল্যকর তথ্য

দ্য ওয়াল ব্যুরো: সালটা ১৮৭৯। ভারতে তখন ব্রিটিশরা শাসন করছে। সময় পেলেই বন্দুক কাঁধে বেরিয়ে পড়তেন শিকারে। বন্যপ্রাণী শিকার করারই নেশা ছিল তাদের। সেই তালিকায় শীর্ষে ছিল বাঘ। এক তথ্যে দেখা যাচ্ছে ওই সালে সবচেয়ে বেশি বন্যপ্রাণী হত্যা করা হয়েছে। তার মধ্যে বাঘের সংখ্যাই ১৫৭৯!

আইএফএস অফিসার প্রবীণ কাশওয়ান এদিন একটি টুইটে এমনই এক চাঞ্চল্যকর তথ্য পেশ করেছেন। তিনি উল্লেখ করেছেন, ‘১৮৭৮ সাল জুড়ে মোট ১৫৭৯টি বাঘ মারা হয়েছে। তারা ওই হত্যার মধ্যে মজার বিষয় বলেও উল্লেখ করেছিল।’

এই তথ্য থেকে জানা যাচ্ছে সবচেয়ে বেশি বাঘ মারা হয়েছিল বাংলায়। সংখ্যাটা ৪২৬। তারপরই আছে অসম (৩৭৫)। যে তথ্য রীতিমতো হাড়হিম করে দিতে যথেষ্ট।

শুধু বাঘ নয়, এই তথ্য থেকে দেখা যাচ্ছে হাতি, চিতাও ব্যাপকহারে শিকার করা হয়েছিল। এক টুইটার ব্যবহারকারী টুইটে লিখেছেন, ‘রোনাল্ড টাইসনের তথ্য অনুযায়ী ১৮৭৫ থেকে ১৯২৫ সালের মধ্যে ৮০ হাজার বাঘ শিকার করা হয়েছে।

কেন্দ্রীয় পরিবেশ মন্ত্রক, ২০১৮ সালের এক পরিসংখ্যানে জানিয়েছে যে, বাঘের সংখ্যা ভারতে ২৯৬৭টি। ভারতে বাঘ প্রকল্পের মাধ্যমে এই সংখ্যা বাড়ানোর চেষ্টা চলছে। এইজন্য ৯টি রাজ্য এই প্রকল্পের জন্য অর্থ পেয়েছে।

২০২১ সালের তথ্য অনুযায়ী, ১২৬টি বাঘ মারা গেছে। যার মধ্যে মধ্যপ্রদেশে ৪২টি, মহারাষ্ট্রে ২৬, কর্ণাটকে ১৫। তবে বিশেষজ্ঞদের মতে, সরকারি তথ্য অনুযায়ী বাঘের মৃত্যু সংখ্যার থেকে তা আরও বেশি, কারণ গভীর জঙ্গলে অনেক বাঘ মারা যায় যা চিহ্নিত করা সম্ভব হয় না।

You might also like