Latest News

বিহারের পর উত্তরপ্রদেশ, গঙ্গার ধারে ভেসে এল পচা গলা মৃতদেহ, ব্যাপক আতঙ্ক এলাকায়

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বিহারের পর এবার উত্তরপ্রদেশ। গঙ্গার ধারে এসে জমা হল পচা গলা মৃতদেহের স্তুপ। উত্তরপ্রদেশের গাজিপুরের ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে গোটা এলাকা জুড়ে। এই নিয়ে টানা দুদিন গঙ্গার ধারে মৃতদেহ ভেসে আসতে দেখা গেল। দেশ জুড়ে অতিমহামারী পরিস্থিতি যে কোন পর্যায়ে পৌঁছেছে এদিনের ঘটনা আরও একবার তা চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল।

গতকাল বিহারের বক্সারের যে ঘাটে সারি সারি মৃতদেহ এসে জড়ো হয়েছিল, এদিনের ঘটনাস্থল তার থেকে খুব বেশি দূরে নয়। মাত্র ৫৫ কিলোমিটারের ব্যবধানেই ফের দেখা গেল একই ছবি। নদীর ধারে ভেসে আসা দেহগুলি করোনা রোগীরই, তেমনটাই অনুমান করছে প্রশাসন এবং সাধারণ মানুষ।

এদিনের ঘটনায় গাজিপুরের জেলা ম্যাজিস্ট্রেট এমপি সিং বলেছেন, “আমরা খবর পেয়েছি। আমাদের আধিকারিকরা ঘটনাস্থলে পৌঁছেছেন। এ ব্যাপারে তদন্ত চলছে। আমরা জানার চেষ্টা করছি বডিগুলো কোথা থেকে এখানে এল।”

অন্যদিকে প্রশাসনের তরফে গাফিলতির অভিযোগ তুলেছেন স্থানীয়রা। তাঁদের কথায়, “আমরা প্রশাসনকে জানানোর পরেও সেভাবে কোনও ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। এভাবে চলতে থাকলে আমরা সবাই করোনায় আক্রান্ত হয়ে যাব।”

গতকাল বিহারের ছবিটা ছিল অনেকটা এমনই। সোমবার সকালে উত্তরপ্রদেশের বর্ডার ঘেঁষা এই এলাকায় নদীর জলে ভাসতে দেখা যায় একাধিক মৃতদেহ। প্রায় শ’খানেক দেহ ভাসতে ভাসতে পাড়ে এসে জড়ো হয়। সকাল সকাল ঘুম থেকে উঠেই এই ভয়াবহ দৃশ্য দেখতে পান এলাকার বাসিন্দারা। তাঁরাই পুলিশে খবর দেন। স্থানীয় প্রশাসনের দাবি ছিল দেহ গুলি এসেছে উত্তরপ্রদেশ থেকে।

বলা হচ্ছে, সৎকার করতে না পেরে কোভিডের মৃতদেহ গুলি পরিবারের অসহায় লোকজন গঙ্গায় ভাসিয়ে দিয়েছেন। কোভিড রোগীদের এই মৃতদেহ থেকে এলাকায় সংক্রমণ ছড়াতে পারে, এই আশঙ্কায় এখন প্রহর গুনছেন গঙ্গাপাড়ের মানুষ।

ফিচার ইমেজঃ প্রতীকী

You might also like