Latest News

মানিকতলায় বড়দিনের আনন্দে মাতল দুস্থ শিশুরা, পাশে ভাষা ও চেতনা সমিতি

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বড়দিনের আনন্দে মাতোয়ারা সারা বিশ্ব। কিন্তু সকলের মুখে হাসি ফুটেছে কি? প্রদীপের তলের অন্ধকারের মতোই এই বড়দিনের উৎসবেও অভুক্ত থাকতে হচ্ছে অনেককে। বড়দিনের আনন্দ অনেক ছোটদের কাছেই বিলাসিতা। তেমনই কিছু শিশুর মুখে এদিন হাসি ফোটাল ভাষা ও চেতনা সমিতি। সারাদিন হাসিমুখে আনন্দে কাটল মানিকতলার খালপাড়ের দুস্থ শিশুদের।

ভাষা ও চেতনা সমিতির উদ্যোগে মানিকতলার খালপাড় এলাকায় একটি পাঠাশালা চালানো হয়। সেখানকার ২৩১ জন শিশু ও কিশোর-কিশোরীকে নিয়ে এদিন আয়োজন করা হয়েছিল এক আনন্দ উৎসবের। উপস্থিত হয়েছিলেন, চলচ্চিত্র পরিচালক শতরূপা সান্যাল, লেখিকা রূপা সেনগুপ্ত, ব্রতচারী শিক্ষক বিবেকানন্দ ঘোষ, মণিমালা আসরের সীতাংশু দত্ত, শিক্ষিকা কল্যাণী মুখোপাধ্যায়, সমাজকর্মী অনুরূপা দেব, সুতপা দেব ও অন্যান্যরা। ছোটদের হাতে তাঁরা তুলে দেন কমলালেবু, কেক, বিস্কুট, চকলেট আর মোজা। মাথায় পরিয়ে দেন ক্রিসমাসের টুপি।

 

ছোটদের সঙ্গে বড়দিনের এই উদযাপনে সহায়তা করে স্কাড সোসাইটি। ভাষা ও চেতনা সমিতির সম্পাদক ড. ইমানুল হক বলেন, সুবিধাবঞ্চিত মানুষদের পাশে থাকাই মানুষের কাজ। একা একা বাঁচা স্বার্থপরতা। আত্মকেন্দ্রিকতা অবসাদ ডেকে আনে।

এই আনন্দ অনুষ্ঠানে এদিন এক নাট্যকর্মী সেখানকার শিশুদের নাটক শেখানোর এবং এক নৃত্যশিল্পী নাচ শেখানোর দায়িত্ব নেন। এছাড়া এই পাঠশালায় আগে থেকেই চলছে বাচ্চাদের সেলাই আর কম্পিউটার শেখানোর কাজ।

You might also like