Latest News

Belgharia Home: রামকৃষ্ণ মিশনের ছাত্রাবাসের জন্য প্রাক্তনীদের সাহায্য

দ্য ওয়াল ব্যুরো: আশির দশকে থাকতেন যে ছাত্রাবাসে, তার উন্নয়নে ৮ লক্ষ ৬৬ হাজার টাকা দান করলেন প্রাক্তনীরা। বেলঘরিয়া রামকৃষ্ণ মিশন ক্যালকাটা স্টুডেন্ট হোমে (Belgharia Home) রামকৃষ্ণ মিশনের ছাত্রাবাসের জন্য প্রাক্তনীদের সাহায্য অভাবী পড়ুয়াদের সাহায্য করতেই ওই উদ্যোগ প্রতিষ্ঠিত প্রাক্তন পড়ুয়াদের।

আরও পড়ুন: কালিয়াচকে বোমার স্তূপ, পাঁচ শিশু জখম হওয়ার পর গ্রেফতার চার

১৯৮৩–৮৮ পর্যন্ত এখানে থেকেই পড়াশোনা করেছেন ওই প্রাক্তনীরা (Belgharia Home)। তাঁদের সকলেই এখন প্রতিষ্ঠিত। কেউ স্কুল ও কলেজে পড়ান। এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানই তাঁদের জীবনে প্রতিষ্ঠিত হতে প্রধান ভূমিকা পালন করেছে। তাঁরা চান, প্রতিষ্ঠানের উন্নতিতে সাহায্য করতে। তাই প্রাক্তন পড়ুয়াদের ৬ জন প্রতিষ্ঠানের সচিব স্বামী একব্রতানন্দের হাতে ওই টাকা তুলে দেন।

প্রাক্তনীদের মধ্যে বিরুপাক্ষ রায় চেক প্রজাতন্ত্রের ব্রনো থেকে এসেছিলেন।

তিনি বলেছেন, ‘‌যদি আমি এখানে না থাকতে পারতাম, তাহলে আমি আমার পড়াশোনা শেষ করতে পারতাম না। এখানে থেকেই আমি স্নাতক হই।’‌

উপেন্দ্রনাথ নন্দী স্কটিশ চার্চ কলেজের পদার্থবিদ্যার অধ্যাপক। তিনি গত ডিসেম্বরে ৫০ হাজার টাকা দান করেছিলেন। তিনিও বেলঘরিয়ায় এই ছাত্রাবাসে থেকে দ্বাদশ শ্রেণী এবং স্নাতক স্তরের পড়া শেষ করেন। তিনি বলেন, ‘‌যেহেতু এই প্রতিষ্ঠান আমাকে পড়াশোনা চালিয়ে যেতে সাহায্য করেছিল এর ঋণ শোধ করা যাবে না। তবে কিছুটা ফিরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করছি।’‌

১৯১৬ সালে এই ছাত্রাবাসটি তৈরি হয়। এখন উচ্চমাধ্যমিক এবং স্নাতক পর্যায়ে ১১০ জন ছাত্রের থাকার ব্যবস্থা রয়েছে। স্বামী একব্রতানন্দ বলেছেন, ‘‌ছাত্রদের একটি বড় অংশ বিনা খরচে এখানে থাকে। যাদের সামান্য সামর্থ্য আছে, তারা মাসে ৫০০ টাকা দেয়।

ছাত্রাবাসে থাকার সুযোগ পেতে একটি প্রবেশিকা পরীক্ষা দিতে হয়।

You might also like