Latest News

ভারতে আটক ২১জন নারী ও শিশুকে দেশে ফেরাল কলকাতার বাংলাদেশ উপ-হাইকমিশন

দ্য ওয়াল ব্যুরো: কখনও পাচার হয়ে, কখনওবা ভুলবশত বা অবৈধভাবে সীমান্তের কাঁটাতার পেরিয়ে ওপার বাংলা থেকে এপার বাংলায় এসে পড়েন বহু বাংলাদেশের অনেক নারী ও শিশু। তারপর আইনি জোট আটকে থাকেন বছরের পর বছর। পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন সেফহোমে আটক থাকে তাঁরা। এমন ২১ জন বাংলাদেশি মহিলা-শিশু দেশে ফিরল।

বাংলাদেশের উপ হাইকমিশনের তরফে জানানো হয়েছে যে, শুক্রবার বাংলার নারী ও শিশু পাচার রোধ বিষয়ক বিশেষ টাস্কফোর্সের সহযোগিতায় ভারতে পাচার হওয়া ২১ জন শিশু ও নারীকে পেট্রাপল-বেনাপোল সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে প্রত্যাবাসন করা হয়েছে।

বিভিন্ন সময়ে বহু বাংলাদেশি শিশু ও মহিলা ভারতে এসে পড়ে। ধরা পড়ে গিয়ে তাঁরা পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন সেফহোমে আটক থাকে। সেই আটককৃত মহিলাদের উদ্ধার করে দেশে ফেরানোর জন্য বহুদিন ধরে উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশের উপ হাইকমিশন। পশ্চিমবঙ্গ সরকারের সংশ্লিষ্ট দফতরে বিষয়টি অবগত করিয়ে তাঁদের উদ্ধার করার ক্ষেত্রে যাবতীয় কাজ চালায় উপ হাই কমিশন।

পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন সেফহোম পরিদর্শন করে আটককৃত শিশু ও মহিলাদের সম্পর্কে যাবতীয় তথ্য সংগ্ৰহ করে তারা। সেই বিষয়ে বাংলাদেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়েও জানানো হয়। পরবর্তীতে মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে আটককৃতদের বাংলাদেশি নাগরিকত্ব যাচাইয়ের পর্ব শেষ করে তাঁদের দেশে ফেরানোর যাবতীয় ব্যবস্থা নেওয়া হয় কলকাতার বাংলাদেশ উপ-হাইকমিশনের পক্ষ থেকে।

উল্লেখ্য, গত বছরের জানুয়ারি মাসেই ৩৮ জন নারী ও শিশুকে একইভাবে বাংলাদেশে পুনর্বাসনের ব্যবস্থা করে কমিশন। তারপর এটি দ্বিতীয়বার সেপ্টেম্বর মাসে ৩৭ জন ও অক্টোবর মাসে ২০ জন নারী ও শিশুকে ওপার বাংলায় পাঠানো হয়েছে। আর নতুন বছর পড়তে না পড়তেই আরও ২১ জনকে দেশে ফেরাতে সক্ষম হল বাংলাদেশের উপ হাই কমিশন। এই ২১ জনের মধ্যে মধ্যে ৯ জন পূর্ণ বয়স্ক মহিলা সহ ১৫ জন মহিলা ও বাকি ৬ জন নাবালককে ফেরানো হয় শুক্রবার।

You might also like