Latest News

একমাত্র সাংবাদিকের মৃত্যুতে শোক ওড়িশার প্রত্যন্ত গ্রামে

দ্য ওয়াল ব্যুরো : গত শনিবার ওড়িশায় মাওবাদীদের (Maoist) পেতে রাখা আইইডি (IED) বিস্ফোরিত হয়ে মারা যান সাংবাদিক রহিত বিসওয়াল (Rohit Biswal)। তাঁর জন্য এখনও শোকে মুহ্যমান কালাহান্ডি জেলার প্রত্যন্ত গ্রাম মোহনগিরি। ওড়িয়া দৈনিক ‘ধরিত্রী’-র সঙ্গে যুক্ত ছিলেন রহিত। তিনি মদনপুর-রামপুর ব্লকে মাওবাদী পোস্টারের ছবি তুলতে গিয়েছিলেন। নির্বাচন বয়কটের ডাক দিয়ে পোস্টার সেঁটেছিল মাওবাদীরা। তার ছবি তুলতে গিয়ে বিস্ফোরকের ওপরে পা পড়ে সাংবাদিকের।

মোহনগিরি গ্রাম জেলা সদর থেকে ৮৫ কিলোমিটার দূরে। একটা নীল স্কুটারে চড়ে ওই অঞ্চলে ঘুরে বেড়াতেন রহিত। এলাকার সমস্যা নিয়ে লিখতেন। তিনি নিজে লেখাপড়া করেছিলেন দশম শ্রেণি পর্যন্ত। কিন্তু ২০০৯ সালে মোহনগিরিতে একটি কলেজ তৈরির জন্য তিনি আন্দোলন করেন। তাঁর উদ্যোগেই ওই অঞ্চলে ২০১৩ সালে একটি আর্টস কলেজ তৈরি হয়।

মোহনগিরির বাসিন্দা গোকুলনন্দা বিসওয়াল বলেন, “তাঁর কাছে কেউ কিছু চেয়ে কখনও খালি হাতে ফেরেনি।” রহিতের দাদা বিশ্বজিৎ বলেন, “আমার ভাই খুব কম সময়েই বাড়িতে থাকত। সে প্রায়ই গ্রামবাসীদের সঙ্গে তাঁদের সমস্যা নিয়ে আলোচনা করত।”

পরে বিশ্বজিৎ বলেন, “কোনও সমস্যার কথা জানলে সে জেলা কর্তৃপক্ষকে বলে সমাধানের চেষ্টা করত। যদিন সে মারা যায়, সেদিন সকালেও সে পুলিশকে জানিয়েছিল, গ্রামে মাওবাদীদের পোস্টার দেখা গিয়েছে।”

You might also like