Latest News

এইচআরএ নিয়ে সিদ্ধান্ত হবে, বেতন বাড়ছে কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মীদের?

দ্য ওয়াল ব্যুরো: সামনের বছর  আসতে বাকি একটা মাস। তার আগেই বড় সুসংবাদ (big news) পেতে চলেছেন কেন্দ্রীয় সরকারি  কর্মচারীরা (central government) (employees)? তাঁদের  বেতন (pay) বাড়ার ইঙ্গিত। ২০২২ এর জানুয়ারি থেকেই তাঁদের বাড়ি ভাড়া ভাতা (হাউস রেন্ট অ্যালাাওয়েন্স) (house rent alliance) বাড়ানোর ভাবনাচিন্তা করছে কেন্দ্রের নরেন্দ্র মোদী সরকার (modi government)।  গত মাসে  এক দফা ডিএ বেড়েছে তাদের। নতুন বছরে বাড়তি উপহার দিতে পারেন প্রধানমন্ত্রী মোদী।
সূত্রের খবর, কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রক প্রায় ১২ লাখ কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মীর এইচআরএ কার্যকর করার ব্যাপারে আলাপ আলোচনা শুরু  করেছে। রেল বোর্ডকে এই মর্মে প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে তাদের সম্মতি চেয়ে। প্রস্তাবটি গৃহীত হলেই বর্ধিত এইচআরএ পাবেন  কর্মচারীরা।

ঘটনা হল, ইন্ডিয়ান রেলওয়ে টেকনিকাল সুপারভাইজারস অ্যাসোসিয়েশন ও  ন্যাশনাল ফেডারেশন অব রেলওয়েমেন চলতি বছরের ১ জানুয়ারি থেকেই দাবি  করছিলেন, এইচআরএ চালু করতে হবে। বলা হচ্ছে, দাবি পূরণ হওয়ার মানে বাম্পার বেতন বৃদ্ধি হবে কেন্দ্রীয় কর্মীদের। এইচআরএ তাঁদের বেতনের একটি ভাগ বা অংশ যা তাঁদের দেওয়া হচ্ছে যে শহরে তাঁরা থাকেন, সেখানে বসবাসের খরচ বাবদ। যদিও বেতন কাঠামো, বেতনের অঙ্ক, বাসস্থানের শহরের ওপর ভিত্তি করে কর্মচারীরাই ঠিক করতে পারেন, কতটা হবে এইচআরএ।

কেন্দ্রীয় কর্মীদের এইচআরএ দেওয়া হয় ২৪, ১৬,  ৮ শতাংশ হারে যথাক্রমে এক্স, ওয়াই ও জেড শহরের মাপকাঠিতে। এইচআরএ যথাক্রমে এক্স, ওয়াই ও জেড শহরের ক্ষেত্রে ৫৪০০, ৩৬০০, ১৮০০ টাকার নীচে হয় না। ন্যূনতম ১৮ হাজার টাকা বেতনের ৩০, ২০ ও ১০ শতাংশ হারে।

সামনের বছরের প্রথমদিকে উত্তরপ্রদেশ সহ ৫ রাজ্যে বিধানসভা ভোটের প্রেক্ষাপটে কেন্দ্রের পরিকল্পনা শেষ পর্যন্ত  কার্যকর হয় কিনা, কেন্দ্রীয় কর্মচারীদের নজর থাকবে সেদিকেই।

 

You might also like