Latest News

কোথাও ২০, কোথাও ১২! মেয়েদের বিয়ের ন্যূনতম বয়স কোন দেশে কত, শুনলে অবাক হবেন

দ্য ওয়াল ব্যুরোঃ ছেলেদের বিয়ের বয়স ২১, তবে মেয়েদের তার চেয়ে কম হবে কেন? ভারতে এতদিন মেয়েদের বিয়ের আইন স্বীকৃত বয়স ছিল ১৮ বছর। এদিন তাও বাড়িয়ে ছেলেদের মতোই ২১ বছর করার প্রস্তাব কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায় পাশ হয়েছে। সব দিক বিবেচনা করেই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

কিন্তু এ তো গেল আমাদের দেশের কথা। বিদেশে বিয়ের আইন হিসেবে কোথায় কত বছরকে স্বীকৃতি দেওয়া হয়, সে খবর কি জানা আছে? বড় বিচিত্র সেই নিয়মকানুন। কোথাও ২০, কোথাও ১৫, কোথাও আবার ন্যূনতম ১২ বছরেও বিয়ে করতে পারে মেয়েরা। ছেলেদের বয়সের সীমাও কোথাও কোথাও অনেকটা কম। দেখে নেওয়া যাক দেশে দেশে সেই বয়সের তালিকা।

ব্রিটেন

ইংল্যান্ড ও ওয়েলসে বিয়ের বয়স ছেলে বা মেয়েদের জন্য আলাদা নয়। সকলেই মোটামোটি ১৮ বছর বয়সে বিয়ে করার যোগ্য হিসেবে বিবেচিত হয়। আর যদি বাবা-মায়ের অনুমতি থাকে, তবে ১৬ কিংবা ১৭ বছরেও বিয়ে করে নিতে পারে ব্রিটেনের যুবক যুবতীরা।

আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্র

যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন প্রদেশে বিয়ে নিয়ে বিভিন্ন আইন প্রচলিত রয়েছে। বেশিরভাগ প্রদেশেই কোনও ব্যক্তিবিশেষের বিয়ের ন্যূনতম বয়স ১৮ বছর। নেবরাস্কা এক্ষেত্রে ব্যতিক্রম। সেখানে বিয়ের বয়স ১৯ বছর। এছাড়া মিসিসিপিতেও এই বয়সের সীমা আলাদা। সেখানে ২১ বছর হলে বিয়ের যোগ্য হিসেবে বিবেচিত হয় ছেলেমেয়েরা। ম্যাসাচুসেটসে কখনও কখনও বিশেষ পরিস্থিতিতে ১২ বছরেও মেয়েরা বিয়ে করতে পারে। তা আইনসম্মত।

চিন

চিনে ছেলেদের বিয়ের জন্য আইনসম্মত বয়স হল ২২ এবং মেয়েদের ক্ষেত্রে তা ২০। তবে এই বয়সের সীমা নিয়ে সেখানে বিতর্ক রয়েছে। তা কমানোর দাবিও করা হয় বারবার। গত ৫ বছর ধরে চিনে বিয়ের সংখ্যা চোখে পড়ার মতো কমে এসেছে। এই পরিস্থিতিতে বিয়ের বয়স ছেলে ও মেয়েদের জন্য কমিয়ে ১৮ বছর করার দাবি উঠেছে।

নাইজার

পশ্চিম আফ্রিকার দেশ নাইজারে বাল্যবিবাহ আইনসম্মত। সেখানে ৭৬ শতাংশ মেয়ে ১৮ বছর বয়সে বিয়ে করে। ২৮ শতাংশ বিয়ে করে ফেলে মাত্র ১৫ বছর বয়সেই। গোটা বিশ্বে বাল্যবিবাহের হার এই নাইজারেই সবচেয়ে বেশি।

ত্রিনিদাদ আর টোবাগো

ক্যারিবিয়ান দ্বীপপুঞ্জের এই দেশে বিয়ের অফিসিয়াল বয়স ছেলে মেয়ে সবার জন্যেই ১৮। তবে সেখানকার হিন্দু ও মুসলিমদের নিজের নিজের আইন রয়েছে। হিন্দু মেয়েরা সেখানে বিয়ে করতে পারে ১৪ বছর বয়সে, ছেলেরা পারে ১৮-তে। আর ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের ক্ষেত্রে ছেলেদের আইনসম্মত বিয়ের বয়স ১৬, মেয়েরা বিয়ে করতে পারে ১২ বছর বয়সেও।

You might also like