Latest News

আদালতের নির্দেশ অমান্য করেই বাজি বিক্রি কলকাতার রাস্তায়, জোড়াসাঁকো থেকে গ্রেফতার দুই

দ্য ওয়াল ব্যুরো: কলকাতা হাইকোর্ট কড়া নির্দেশ দিয়েছে কালীপুজো, দীপাবলিতে সমস্ত রকম বাজি ফাটানো ও বিক্রি বন্ধ রাখতে হবে। কিন্তু আদতে কলকাতার রাস্তায় দেখা গেল অন্য ছবি। আদালতের নির্দেশ অমান্য করেই চোরাগোপ্তা পথে বাজি বিক্রি চলছেই। জোড়াসাঁকো থানা এলাকায় তল্লাশি চালিয়ে ৫৪০ কিলোগ্রাম বাজি সহ দু’জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
জোড়াসাঁকোর তারা চাঁদ দত্ত স্ট্রিট রোডের একটি গোডাউনে প্রচুর পরিমাণে বাজি মজুত ছিল বলে জানিয়েছে পুলিশ। খবর পেয়ে শনিবার সকালে ওই এলাকায় হানা দেয় পুলিশ। পুরো গোডাউনে তল্লাশি চালানো হয়। ৫৪০ কিলোগ্রামের মতো বাজি উদ্ধার হয়েছে।
ধৃতদের নাম গোপাল কাথালা ও বিশাল বারদিয়া। পুলিশ জানাচ্ছে, এই গোডাউন থেকে বাজি অন্য কোথাও পাঠানো হয়েছে কিনা তার খোঁজ চলছে।
কালীপুজো ও দীপাবলিতে সব ধরনের বাজি বিক্রি ও পোড়ানো নিষিদ্ধ করেছে কলকাতা হাই কোর্ট। আদালতের নির্দেশ, এই উৎসবে কোনও বাজি ব্যবহার করা যাবে না। শুধুমাত্র প্রদীপ জ্বালানো যেতে পারে। হাইকোর্টের বিচারপতি বিচারপতি সব্যসাচী ভট্টাচার্য জানিয়েছেন, শুধুমাত্র প্রদীপ ও মোমবাতি জ্বেলেই দীপাবলি, ছট, কিংবা গুরু নানকের জন্মদিনের মতো উৎসব পালন করতে হবে। পরিবেশবান্ধব বাজির অনুমতি দিয়েছে রাজ্য দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদ। কিন্তু কোন বাজি পরিবেশবান্ধব তা জানার পরিকাঠামো নেই রাজ্যে। আদালত জানিয়েছে, সাধারণ বাজিকে যে পরিবেশবান্ধব বাজি বা গ্রিন ক্র্যাকার্স বলে বিক্রি করা হবে না তারই বা নিশ্চয়তা কোথায়। তাই সব ধরনের বাজি পোড়ানো ও বিক্রি বন্ধ রাখার কড়া নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

You might also like