মঙ্গলবার, অক্টোবর ১৫

‘সাপ’ ভেবে তারস্বরে চিৎকার মহিলার, আসল ঘটনা জেনে হেসে গড়াচ্ছেন নেটিজেনরা

দ্য ওয়াল ব্যুরো: সুপারমার্কেটে শপিং করতে গিয়েছিলেন ফতিমা দাউদ নামের এক মহিলা। জিনিস্পত্র নিয়ে বেরনোর সময় পার্কিং লটে আসেন তিনি। গাড়ির কাছে যেতেই তীব্র আর্তনাদ করে ওঠেন মহিলা। ছিটকে পড়ে যায় হাতের সব জিনিসপত্র। সেসব দিকে তখন খেয়ালই নেই মহিলার। তারস্বরে তখন ‘ সাপ… সাপ…’ বলে চেঁচাচ্ছেন তিনি। কারণ কয়েক হাতের তফাতে তখন ফতিমার পায়ের সামনে পড়ে রয়েছে কালো রংয়ের বেশ লম্বা একটা জিনিস। যেটা দেখতে অনেকটাই সাপেরই মতো। এই ঘটনা ঘটেছে দক্ষিণ আফ্রিকায়। 

ফতিমার চিৎকারে পাশে দাঁড়ানো এক বৃদ্ধাও চমকে যান। কোনওমতে ছুটে আসেন ফতিমার কাছে। ভাবেন বুঝি বড় কোনও বিপদ হয়েছে। ততক্ষণে ফতিমার পায়ের সামনে থাকা কালো রংয়ের জিনিসটা নজরে এসেছে বৃদ্ধার। সঙ্গে একজনকে পেয়ে একটু সাহস হয় ফতিমার। কালো লম্বা জিনিসটার দিকে একটু এগিয়ে যান দু’জনেই। খানিক ভালো করে নজর করতেই অট্টহাসিতে ফেটে পড়েন ফতিমা। হাসতে শুরু করেন বৃদ্ধাও। নিমেষেই ফতিমা বুঝতে পারেন পায়ের কাছে থাকা কালো জিনিস যেটাকে সাপ ভেবে ভুল করছিলেন সেটা আসলে নকল চুলের বিনুনি। অনুমান, মাথায় কেউ ওই বিনুনি লাগিয়ে সেজেছিলেন। কিন্তু অসাবধানতায় তা খুলে পড়ে গিয়েছে।

নিজের কাণ্ডকারখানায় তখন কেমন যেন বোকা বনে গিয়েছেন ফতিমা। এত জোরে চেঁচানোর জন্য প্রথমেই ওই বৃদ্ধার কাছে ক্ষমা চেয়ে নেন তিনি। তারপর ছবি তুলে নেন ওই ফলস চুলের বিনুনির। গোটা ঘটনা বিবরণ দিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেন ফতিমা। তাঁর পোস্ট ভাইরাল হতেই হাসির রোল উঠেছে নেট দুনিয়ায়। ফতিমা নিজেই জানিয়েছেন, “বাচ্চাদের মতো চেঁচিয়ে উঠেছিলাম”। তাঁর কীর্তি শুনে হাসতে হাসতে পেটে খিল ধরে যাওয়ার অবস্থা নেটিজেনদের। অনেকেই অবশ্য বলছেন, পায়ের সামনে কালো বিনুনি পড়ে থাকতে দেখলে প্রথমটায় হয়তো অনেকেই হকচকিয়ে যেতেন। ওটাকে সাপই ভেবে বসতেন। তাই ফতিমাকে নিয়ে এত হাসাহাসি করার মতো কিছুই হয়নি।

Comments are closed.