শুক্রবার, সেপ্টেম্বর ২০

কাশ্মীর নিয়ে আন্তর্জাতিক আদালতে যাবে পাকিস্তান, জানালেন পাক বিদেশমন্ত্রী

  • 145
  •  
  •  
    145
    Shares

দ্য ওয়াল ব্যুরো: কাশ্মীর বিবাদ নিয়ে এ বার আন্তর্জাতিক আদালতের দ্বারস্থ হওয়ার সিদ্ধান্ত নিল ইসলামাবাদ। মঙ্গলবার পাক বিদেশমন্ত্রী শাহ মেহমুদ কুরেশি সাংবাদিকদের এ কথা জানিয়েছেন। তিনি আরও বলেন, সব আইনি দিক বিচার করেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বিলোপ-সহ নয়াদিল্লির সাম্প্রতিক পদক্ষেপের বিরোধিতা করে ইতিমধ্যে রাষ্ট্রপুঞ্জের নিরাপত্তা পরিষদে বিষয়টি উত্থাপন করেছিল ইসলামাবাদ ও বেজিং। কিন্তু কাশ্মীর যে ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয়, সে ব্যাপারে নিরাপত্তা পরিষদে পাল্টা সওয়াল করেছিল নয়াদিল্লি। ফলে এ ব্যাপারে নিরাপত্তা পরিষদ শেষমেশ আর নাক গলাতে রাজি হয়নি। তাতে সন্দেহাতীত ভাবেই নাক কাটা গিয়েছে পাকিস্তানের।

ভারতীয় কূটনীতিকদের মতে, নিজেদের মুখ বাঁচাতেই এখন আন্তর্জাতিক আদালতে যাওয়ার কথা বলছে ইসলামাবাদ। শেষ পর্যন্ত তারা তা করে কিনা, তা দেখার অপেক্ষাতেও থাকবে সাউথ ব্লক।

কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বিলোপের পর গত ৬ অগস্ট পাকিস্তানের সংসদের দুই সভার যৌথ অধিবেশন ডেকেছিলেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। সে দিনই তিনি জানিয়েছিলেন, এ ব্যাপারে সব রকম আন্তর্জাতিক মঞ্চে যাবে ইসলামাবাদ। এ দিন পাক বিদেশমন্ত্রী শাহ মেহমুদ কুরেশি বলেন, যৌথ অধিবেশনে দেওয়া সেই প্রতিশ্রুতি মতোই এগোচ্ছে পাক প্রশাসন।

তবে ভারতীয় কূটনীতিকরা বলছেন, কাশ্মীরের জন্য ইমরান খানের যত না উদ্বেগ, তার বেশি উদ্বেগ নিজের গদি নিয়ে ঘরোয়া রাজনীতিতে টিকে থাকার জন্য ভারত বিদ্বেষী মনোভাব জাগিয়ে তুলতে চাইছেন তিনি।

সোমবার এ কথাটা মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকেও জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তিনি বলেছেন, কিছু আঞ্চলিক নেতা খুবই উগ্র ভাবে ভারতের বিরুদ্ধে হিংসায় উস্কানি দিচ্ছেন তা বন্ধ হওয়া উচিত। মোদীর সঙ্গে সেই কথোপকথনের পর পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকেও ফোন করেছিলেন ট্রাম্প। তার পর হোয়াইট হাউজের তরফে বলা হয়, কাশ্মীর নিয়ে উত্তেজনা কমানোর জন্য দু দেশকেই পরামর্শ দিয়েছেন তিনি। এও বলেছেন, শান্তি কায়েমের জন্য আলোচনায় বসতে।

অনেকের মতে, ট্রাম্পের ওই ফোনের পর ইমরান হয়তো দেখাতে চাইছেন তাঁরা কী রকম দায়িত্বশীল আচরণ করছেন এবং আন্তর্জাতিক আদালতের উপর ভরসা করছেন। কিন্তু কিছুতেই যে কিছু হওয়ার নয় তাও হয়তো বুঝতে পারছেন ইমরান ও মেহমুদ কুরেশি।

Comments are closed.