বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ১৪

সমুদ্রের মাঝেই ঠোঁটে ঠোঁট ডোবালেন দম্পতি, তারপর… দেখুন ভাইরাল ছবি

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বিয়ে সেরেছিলেন আলাস্কায়। সব ছবি উঠেছিল বরফে ঢাকা পাহাড়ের মাঝে। তবে মিঞা-বিবির শখ ছিল সমুদ্রের তীরে একটা ফটোশ্যুট করবেন। উথাল-পাথাল ঢেউয়ের মাঝে বসে দেবেন রোম্যান্টিক পোজ। বিয়ের সময় সুযোগ হয়নি তো কী হয়েছে, পোস্ট ওয়েডিং ফটোশ্যুটের জন্য সমুদ্রকেই বেছে নিয়েছিলেন টিম এবং বেকাহ। 

সব ঠিকই ছিল। ক্যামেরা হাতে পোজিশন নিয়ে ফেলেছিলেন তাবড় ক্যামেরাম্যানরা। সমুদ্রের মাঝে দাঁড়িয়ে একে অন্যের ঠোঁটে ঠোঁট ডুবিয়েছিলেন টিম এবং বেকাহ। আচমকায় ধেয়ে এল উত্তাল ঢেউয়ের স্রোত। ব্যাস! জলের ধাক্কায় সমুদ্রের মধ্যেই পড়ে গেলেন ওই দম্পতি। নাহ্‌ বিপদ হয়নি কোনও। তবে ভেস্তে গিয়েছে ফটোশ্যুট। জলের মধ্যে আচমকা পড়ে গিয়ে টিম আর বেকাহর তখন সে কী হাসি। একে অন্যকে জড়িয়ে ধরে হেসেই চলেছেন। দু’জনের পোশাক তখন নোনা জলে ভিজে জবজবে হয়ে গিয়েছে। মাথা থেকে পা পর্যন্ত বালিতে মাখামাখি অবস্থা। কিন্তু এত কিছুর পরেও বিরক্ত নেই দম্পতির মনে। বরং গোটা ব্যাপারটাই জমিয়ে উপভোগ করতে শুরু করেন দু’জনে। 

স্বামী-স্ত্রীর ক্যান্ডিড মোমেন্ট লেন্সবন্দি করতে দেরি করেননি ক্যামেরাম্যানরা। প্রাণোচ্ছ্বল হাসির সঙ্গে জুটির রোম্যান্টিক চুম্বন, সবকিছুই ধরা পড়েছে ফ্রেমে। নেট দুনিয়ায় এই জুটির পোস্ট ওয়েডিং শ্যুটের ছবি এখন ভাইরাল। দম্পতির রোম্যান্টিক মুহূর্তে মজেছেন নেটিজেনরাও। জল-বালিতে মাঝামাখি হয়েও নিজেদের ফটোশ্যুট উপভোগ করেছেন টিম এবং বেকাহ। ছবি শেয়ার করে বেকাহ লিখেছেন, “পোশাক নষ্ট করার কোনও প্ল্যান ছিল না আমাদের। তবে সমুদ্রের বোধহয় অন্য পরিকল্পনা ছিল।”   

বেকাহ জানিয়েছেন, তিনি হাওয়াইতেই থাকতেন। তবে বিয়ের আগে কখনও সেখানে আসেননি টিম। বিয়ের অনুষ্ঠানও হয়েছিল আলাস্কাতে। তাই বেকাহর মা পরামর্শ দিয়েছিলেন এই অভিনব ফটোশ্যুটের। বেকাহর কথায়, “মা বলেছিলেন পাহাড়-সমুদ্র দু’জায়গাতেই তোমাদের ছবি থাকবে। টিম আর আমারও সমুদ্র খুব পছন্দ। তাই এই প্রস্তাবে রাজি হয়ে যাই।”

পড়ুন ‘দ্য ওয়াল’ পুজো ম্যাগাজিন ২০১৯–এ প্রকাশিত গল্প

প্রতিফলন

Comments are closed.