মঙ্গলবার, জানুয়ারি ২১
TheWall
TheWall

শোভন-বৈশাখী সিবিআই দফতরে, সারদা তদন্তে জেরার মুখে কলকাতার প্রাক্তন মেয়র

Google+ Pinterest LinkedIn Tumblr +

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বৃহস্পতিবার সারদা কাণ্ডে হাজিরা দিতে সিবিআই দফতরে গেলেন কলকাতার প্রাক্তন মেয়র তথা বিজেপি নেতা শোভন চট্টোপাধ্যায়। সঙ্গে গেলেন তাঁর বান্ধবী বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ও। বেলা পৌনে বারোটা নাগাদ সিজিও কমপ্লেক্সে পৌঁছন শোভন বৈশাখী। কয়েক দিন আগেই সারদা তদন্তে রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী শোভন চট্টোপাধ্যায়কে তলব করেছিল সিবিআই। এ দিন হাজিরা দিতে এলেন তিনি।

কী কারণে তলব?

সিবিআই সূত্রের খবর, গত কয়েকমাস ধরে সারদা তদন্তে কেন্দ্রীয় এজেন্সি যে ব্যবসায়ীদের জেরা করেছিল, তাঁদের মধ্যে থেকেই শোভন চট্টোপাধ্যায়ের নাম উঠে এসেছে। সারদার একাধিক কোম্পানির ট্রেড লাইসেন্স ইস্যু হয়েছিল কলকাতা কর্পোরেশন থেকে। সেই সময়ে কলকাতার মেয়র ছিলেন শোভনবাবু। তদন্ত এজেন্সি দেখতে চাইছে, এই সব লাইসেন্স দেওয়ার ক্ষেত্রে সব নিয়ম মেনে করা হয়েছিল নাকি সুবিধে পাইয়ে দেওয়ার জন্যই তা দিয়েছিল পুরসভা।

সারদা তদন্তে বারবার উঠে এসেছে প্রভাবশালীদের টাকা দেওয়ার কথা। সেই তালিকায় শোভন চট্টোপাধ্যায়ের নাম রয়েছে কি না, তাও খতিয়ে দেখতে চাইছেন সিবিআই আধিকারিকরা। সারদায় সবচেয়ে বেশি আমানতকারী ছিল দক্ষিণ চব্বিশ পরগনার। আর তখন দলীয় সংগঠনের দক্ষিণ চব্বিশ পরগনার জেলা সভাপতির দায়িত্বেও ছিলেন শোভন চট্টোপাধ্যায়। সিবিআই বারবার আদালতে সারদা তদন্তে বৃহত্তর ষড়যন্ত্রের কথা বলেছে। পর্যবেক্ষকদের মতে, সে ব্যাপারেই তদন্ত এগোতে জেরা করা হচ্ছে শোভনকে।

গত ১১ সেপ্টেম্বর নারদ তদন্তের জন্য ভয়েস স্যাম্পল দিতে সিবিআইয়ের তলবে হাজিরা দিতে নিজাম প্যালেসে গিয়েছিলেন শোভন। বিজেপি-তে যোগ দেওয়ার পর এই দ্বিতীয়বার কেন্দ্রীয় এজেন্সির সামনে গেলেন কলকাতার প্রাক্তন মহানাগরিক।

পড়ুন, দ্য ওয়ালের পুজোসংখ্যার বিশেষ লেখা…

Share.

Comments are closed.