রবিবার, নভেম্বর ১৭

মমতার ডিএ ঘোষণা, কর্মচারীরা বললেন নতুন কী?

  • 27
  •  
  •  
    27
    Shares

দ্য ওয়াল ব্যুরো: রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের বকেয়া মহার্ঘ ভাতা তথা ডিএ জানুয়ারি মাসেই মিটিয়ে দেওয়া হবে বলে বৃহস্পতিবার ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এ দিন বীরভূমের ইলমবাজারে এক সভায় মুখ্যমন্ত্রী বক্তৃতা প্রসঙ্গে বলেন, রাজ্য সরকারের আর্থিক সংকট রয়েছে। তার মধ্যেও মানুষের যতটা সম্ভব আর্থিক সুরাহার চেষ্টা করা হচ্ছে। এর পরই মুখ্যমন্ত্রী জানান, জানুয়ারি মাসে রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের ১২৫ শতাংশ বকেয়া ডিএ মিটিয়ে দেওয়া হবে। এর পর কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীদের সঙ্গে তাঁদের ফারাক থাকবে মাত্র ২৩ শতাংশ।

আরও পড়ুন ‘যে খায় চিনি, তারে জোগায় চিন্তামণি’, দিদির অনুপ্রেরণা তাঁর বাবাই

এ ব্যাপারে বাম ও বিজেপি-র সমালোচনাও করেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, এই পরিস্থিতির জন্য সিপিএম দায়ী। ৩৪ বছর ধরে বাংলায় শাসন করে কর্মচারীদের জন্য তাঁরা কিচ্ছু করেননি। আবার কেন্দ্রে ক্ষমতায় থেকে বিজেপি রাজ্যের থেকে সব টাকা কেড়ে নিচ্ছে। বঞ্চনা করছে রাজ্যের সঙ্গে।

তবে মুখ্যমন্ত্রী যাই রাজনৈতিক দোষারোপ করুন, এ দিনের ঘোষণায় কর্মচারীরা যে খুব উৎফুল্ল হয়েছেন তা নয়। মুখ্যমন্ত্রী ডিএ ঘোষণা করেছেন, এ খবর ছড়াতেই এদিন রাজ্য সরকারি কর্মচারী মহলে হই হই পড়ে গিয়েছিল। কিন্তু একটু পরেই তাঁরা বুঝতে পারেন, ব্যাপারটা নতুন কিছু নয়! কর্মচারী ফেডারেশনের নেতা মলয় মুখোপাধ্যায় বলেন, নতুন কী বললেন মুখ্যমন্ত্রী? গত বছর জুন মাসে জামাই ষষ্ঠীর দিন নবান্নে দাঁড়িয়ে এই ঘোষণা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী এবং অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্র। বাস্তব হল, অন্য রাজ্যগুলি এবং কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীরা তিন বছর আগেই অর্থাৎ ১ জানুয়ারি ২০১৬ থেকে ১২৫ শতাংশ হারে ডিএ পাচ্ছেন। বাংলার কর্মীরা তা পাবেন এতোদিন পর। এর থেকে বড় দুর্ভাগ্যজনক আর কী হতে পারে?

অন্যদিকে কোঅর্ডিনেশন কমিটির তরফে সাধারণ সম্পাদক বিজয়শঙ্কর সিংহ বলেন, মুখ্যমন্ত্রী কর্মচারীদের সঙ্গে প্রতারণা করছেন। এক দিকে ডিএ বকেয়া রেখে দিয়েছেন। অন্যদিকে নিত্য এমন ভাব দেখাচ্ছেন যে সবটা দিয়ে দেওয়া হবে। এটা প্রতারণা ছাড়া আর কী! অথচ বাস্তব হল, জানুয়ারি মাসে কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীরা আরও ৭ শতাংশ ডিএ পাবেন। আর বাংলার কর্মীরা পাবেন, ঘোষণার পর ঘোষণা। তাঁর কথায়, ডিএ মামলা এখন আদালতের বিচারাধীন। কর্মচারীরা নবান্নের তুলনায় অনেক বেশি আশা নিয়ে তাকিয়ে রয়েছেন আদালতের দিকে। শুধু কি তাই রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের পে কমিশনও তো এখন বিশ বাঁও জলে। সে ব্যাপারটা নিয়ে তো কোনও উচ্চবাচ্যই করছেন না মুখ্যমন্ত্রী বা অর্থমন্ত্রী।

জুন মাসে কী ঘোষণা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী পড়তে ক্লিক করুন

Breaking রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের জন্য ১৮ শতাংশ ডিএ ঘোষণা মমতার

Breaking রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের জন্য ১৮ শতাংশ ডিএ ঘোষণা মমতার

 

The Wall-এর ফেসবুক পেজ লাইক করতে ক্লিক করুন 

Comments are closed.