শুক্রবার, ডিসেম্বর ১৪

ক’দিন লাগে তদন্ত করতে? সিআইডি কি ঘুমোচ্ছে? নন্দীগ্রাম নিখোঁজ মামলা নিয়ে ক্ষুব্ধ মুখ্যমন্ত্রী

দ্য ওয়াল ব্যুরো: এগারো বছর কেটে গেলেও মেলেনি খোঁজ। ২০০৭-এর নভেম্বর থেকে নন্দীগ্রামের সাতটি পরিবারের ১১ জন নিখোঁজ কাণ্ডের তদন্তভার দেওয়া হয়েছিল রাজ্য গোয়েন্দা সংস্থা সিআইডি-কে। কিন্তু এখনও তার কিনারা না হওয়ায় ক্ষুব্ধ মুখ্যমন্ত্রী দ্রুত তদন্ত শেষ করার জন্য স্বরাষ্ট্র সচিবকে কড়া নির্দেশ দিলেন বৃহস্পতিবার।

এ দিন দিঘায় পূর্ব মেদিনীপুরের প্রশাসনিক বৈঠকে নন্দীগ্রামের বিধায়ক তথা রাজ্যের পরিবহণ ও পরিবেশমন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী দিদিকে বলেন, সিআইডি নিখোঁজ মামলার তদন্ত কিছুটা এগোলেও গত দু’মাস ধরে তার কোনও অগ্রগতি হয়নি। শুভেন্দুর এ কথা শোনার পরই ক্রুদ্ধ মমতা পিছনের সারিতে বসে থাকা রাজ্যের স্বরাষ্ট্র সচিবকে উদ্দেশ করে বলেন, “অত্রি তুমি এটা দেখো। একটা তদন্ত করতে ক’দিন লাগে? সিআইডি কি ঘুমোচ্ছে? ইমিডিয়েট অ্যাকশন নিতে বলো।” ম্যাডামের কথা শুনে হাতে থাকা নোট প্যাডে নোটও নিয়ে নেন স্বরাষ্ট্র সচিব অত্রি ভট্টাচার্য।

বুধবার বাজকুলের সরকারি সভা থেকেও দীর্ঘক্ষণ নন্দীগ্রাম আন্দোলনের স্মৃতিচারণা করেছিলেন মমতা। কী ভাবে তাঁকে চণ্ডীপুরে ঘিরে রেখেছিল সিপিএম, কী ভাবে তা ডিঙিয়ে নন্দীগ্রামে ঢুকেছিলেন নেত্রী, সেই সব কথা বলার মাঝেই নন্দীগ্রামের নিহত এবং নিখোঁজদের সম্পর্কে বলেছিলেন, “সিপিএমের হার্মাদরা চোদ্দজনকে তো মেরেছিলই, সেই সঙ্গে এখনও অনেকে নিখোঁজ। তাঁরা আজও ফিরে আসেনি।”

সেই সময় অভিযোগ উঠেছিল, বহু লোককে মেরে হলদি নদীর জলে ভাসিয়ে দিয়েছিল সিপিএমের অ্যাকশন স্কোয়াড। বাজকুলের সভায় সেই প্রসঙ্গও উল্লেখ করেছিলেন মমতা। রাজ্যে পালাবদলের ক্ষেত্রে সিঙ্গুর, নন্দীগ্রাম আন্দোলন মাইলফলক। এগারো বছর আগে নন্দীগ্রাম আন্দোলনের পুরোধা নেতা ছিলেন শুভেন্দু। ২০১৬ সালে তাঁকে যখন সাংসদ থেকে মন্ত্রিসভায় আনার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেন মমতা, ফিরোজা বিবির বদলে নন্দীগ্রামেই প্রার্থী করেছিলেন। নন্দীগ্রামের মানুষের স্বাভাবিক অভিভাবক শুভেন্দু।

এই তো ক’দিন আগে ১০ নভেম্বর, সবার চোখ যখন চলচ্চিত্র উৎসবের ঝাঁ চকচকে মঞ্চে, তখন নন্দীগ্রাম দিবসের অনুষ্ঠানে একাই সেখানে গিয়েছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। গত কয়েক মাসে নেত্রী তাঁর উপর আস্থাও রেখেছেন একাধিকবার। একের পর এক জেলায় অন্য নেতাদের সরিয়ে দায়িত্ব দিয়েছেন তাঁকে। তাই তিনি যদি প্রশাসনিক সভায় নালিশ করেন, দিদি তো চটবেনই সিআইডি-র উপর!

Shares

Comments are closed.