বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ২১
TheWall
TheWall

গরুর কুঁজে স্বর্ণনাড়ি থাকে, সূর্যালোকে সেখান থেকে সোনা তৈরি হয়: দিলীপ ঘোষ

দ্য ওয়াল ব্যুরো: গোচোনার কথা তো শুনেছেন। গোসোনার কথা জানেন কি?

গোচোনা দিয়ে ক্যানসার নিরাময়ের তত্ত্ব দিয়েছিলেন উত্তরপ্রদেশের বিজেপি নেত্রী রেখা আর্য। এবার গরুর দুধে সোনার হদিশ দিলেন বাংলার বিজেপি রাজ্য সভাপতি তথা মেদিনীপুরের সাংসদ দিলীপ ঘোষ।

সোমবার দিলীপবাবু বর্ধমান টাউন হলে গাভী কল্যাণ সমিতির সভায় যোগ দিয়েছিলেন। সেখানে তিনি বলেন, “গরুর দুধে সোনার ভাগ থাকে। ওই জন্য গরুর দুধের রং সোনালি হয়।” এখানেই থামেননি দিলীপবাবু। তাঁর কথায়, “দেশি গরুর কুঁজে স্বর্ণনাড়ি থাকে। সেখানে সূর্যের আলো পড়লেই সোনা বের হয়।”

গত কয়েকবছর ধরেই দেশের রাজনীতিতে সরু অন্যতম ইস্যু। সোমবারের অনুষ্ঠানে দিলীপবাবু পরামর্শের সুরে বলেছেন, “জার্সি গরুর দুধে ভারতীয় গরুর মতো গুণ নেই। আমাদের দেশের গরু মায়ের মতো। আর বিদেশি গরু আন্টির মতো।”  এরপর তিনি বলেন, “দেশি গরুর দুধে সব রকমের গুণ আছে। আমি অনেককে জানি, যাঁরা গরুর দুধ আর গঙ্গা জল খেয়ে বছরের পর বছর বেঁচে আছেন।”

গোমাংস ভক্ষণকারীদের বিরুদ্ধেও তীব্র তোপ দাগেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি। তাঁর কথায়, “কিছু বুদ্ধিজীবী গরুর মাংস খেয়ে খুব গর্ব করেন। আমি বলছি তাঁরা কুকুরের মাংসও খেতে পারেন।”

গরুর দুধে সোনা থাকার তত্ত্ব নিয়ে ইতিমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় হইহই পড়ে গিয়েছে। অনেক প্রানী বিজ্ঞানীও বিষয়টি শুনে কার্যত অবাক। কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণী বিজ্ঞান বিভাগের এক অধ্যাপক তাঁর ফেসবুক প্রোফাইলে লিখেছেন, “গরুর দুধে সোনা: এমন গবেষণা কোথায় হয়েছে তা জানতেব পারলে ধন্য হতাম।”

Comments are closed.