শুক্রবার, ডিসেম্বর ৬
TheWall
TheWall

ব্যর্থ ঋষভ, ধোনি ফেরাও গর্জনে ভরে উঠল সোশ্যাল মিডিয়া

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বাংলাদেশের বিরুদ্ধে টি ২০ সিরিজ ভারত জিতলেও হতাশ করেছে ভারতের উইকেট কিপার ব্যাটসম্যান ঋষভ পন্থের ফর্ম। তিনটি ম্যাচেই ব্যাট হাতে ব্যর্থ তিনি। এমনকি উইকেটের পিছনেও শিশুসুলভ ভুল করেছেন পন্থ। আর পন্থের এই ব্যর্থতার পরেই ফের শুরু হয়েছে ধোনি ফেরাও গর্জন। মহেন্দ্র সিং ধোনিকে ফিরে আসার আবেদন করেছেন নেটিজেনরা।

অথচ কয়েক মাস আগে এই ঋষভ পন্থই ছিলেন ভারতীয় ক্রিকেটের সবথেকে উজ্জ্বল প্রতিভা। ঋদ্ধিমান সাহা চোট পাওয়ার পর সব ফরম্যাটেই তিনি ছিলেন অটোমেটিক চয়েস। টেস্ট ক্রিকেটে ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ায় সেঞ্চুরি পাওয়ার পর তাঁকে নিয়ে হইহই হয়েছিল অনেক। কিন্তু তারপরও বিশ্বকাপের দলে জায়গা হয়নি ঋষভের। পরে অবশ্য পরিবর্ত খেলোয়াড় হিসেবে তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয়।

বিশ্বকাপের পর থেকে একটিও ম্যাচ খেলেননি ধোনি। কবে ফের তিনি মাঠে নামবেন তাও কেউ জানে না। আর তাই ধোনির অবর্তমানে ঋষভের হাতেই ছিল সব দায়িত্ব। কিন্তু আশ্চর্যজনকভাবে বিশ্বকাপের পর থেকেই ফর্ম খারাপ হতে থাকে পন্থের। ওয়েস্ট ইন্ডিজ, দক্ষিণ আফ্রিকার পর বাংলাদেশ, তিনটি সিরিজেই তিনি ব্যর্থ। দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে তো টেস্ট সিরিজে ফের দলে জায়গা দেওয়া হয় ঋদ্ধিকে। আর উইকেটের পিছনে নিজের দক্ষতায় সবার মন জয় করে নিয়েছেন তিনি।

পন্থের এই ফর্ম চিন্তায় রেখেছে ম্যানেজমেন্টকে। তাঁরা তরুণ ক্রিকেটারকে সময় দেওয়ার পক্ষপাতী। একই কথা বলেছেন নতুন বোর্ড সভাপতি সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ও। তাই এখনও তাঁকে খেলানো হচ্ছে। কিন্তু এসব মানতে নারাজ ক্রিকেট সমর্থকরা। তাঁদের মুখে দুটি নাম উঠে আসছে। এক ধোনি ও দুই সঞ্জু স্যামসন।

কেউ বলছেন যদি তরুণ প্রতিভাকে সুযোগ দিতেই হয় তাহলে সঞ্জু স্যামসন কী দোষ করলেন। আইপিএল-এও ভালো খেলেছেন তিনি। তাঁকে কেন সুযোগ দেওয়া হচ্ছে না। তবে বেশিরভাগেরই যুক্তি ধোনিকে ফিরিয়ে আনার ব্যাপারে। ইতিমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ঋষভকে নিয়ে একাধিক মিম বেরিয়েছে। আর বেশিরভাগ মিম-এই তাঁর ব্যর্থতাকে কটাক্ষ করা হচ্ছে। সবাই বলছেন ফিরে আসুন ধোনি। তিনি না এলে এই টিমের সমস্যা দূর হবে না।

অবশ্য ভারতীয় ম্যানেজমেন্টের তরফে কখনও বলা হয়নি ধোনিকে দলে ফেরানো হবে না। বরং সৌরভ নিজে বলেছেন ধোনি কী করতে চান সে ব্যাপারে তাঁর সঙ্গে আলোচনা করা হবে। কিন্তু এখনও পর্যন্ত মুখ খোলেননি মাহি। কবে তিনি ফের মাঠে ফিরবেন বা আদৌ ফিরবেন কিনা সে ব্যাপারে এখনও কোনও খবর পাওয়া যাচ্ছে না।

Comments are closed.