মঙ্গলবার, জানুয়ারি ২৮
TheWall
TheWall

রোহিত শর্মাদের কপালে ভাঁজ, রাজকোটের আকাশে ‘মহা’ বিপদ

Google+ Pinterest LinkedIn Tumblr +

দ্য ওয়াল ব্যুরো: সাইক্লোন ‘মহা’ নিয়ে চিন্তা ছিলই। বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই রাজকোটের আকাশ ঢেকে রয়েছে কালো মেঘে। মাঝেমধ্যে চলছে বিক্ষিপ্ত বৃষ্টিও। আর তাতেই ভাঁজ পড়েছে রোহিত শর্মাদের কপালে। সন্ধেবেলা সৌরাষ্ট্র ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের মাঠে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে বিরুদ্ধে ভারতের দ্বিতীয় টি২০ ম্যাচ হওয়া নিয়ে তৈরি হয়েছে ঘোর সংশয়।

গত দু’দিন ধরেই হাওয়া অফিস জানাচ্ছিল শক্তি সঞ্চয় করছে পূর্ব-মধ্য আরব সাগরে সৃষ্টি হওয়া ঘূর্ণিঝড় ‘মহা’। বুধবার গভীর রাতে বা বৃহস্পতিবার ভোরের দিকে তা আছড়ে পড়তে পারে গুজরাত উপকূলে। ঝড়ের গতি হতে পারে ৯০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা। এর প্রভাবে ভারী বৃষ্টি হতে পারে গুজরাতের জুনাগড়, গীর, সোমনাথ, আমরেলি, সুরাট, ভারুচ, আনন্দ, রাজকোট, আহমেদাবাদ-সহ রাজ্যের একটি বড় অংশে।

তিনটি টি২০ ম্যাচের সিরিজে প্রথম ম্যাচেই হেরে বসে আছে ভারত। দিল্লির অরুণ জেটলি স্টেডিয়ামে মুসফিকুরের ব্যাটিং আর ধোঁয়াশাকে মোকাবিলা করতে পারেনি টিম ইন্ডিয়া। টসে জিতে প্রথমে বল করার সিদ্ধান্ত নেন বাংলাদেশের অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। প্রথম ওভারেই অধিনায়ক রোহিত শর্মার উইকেট হারায় ভারত। অন্যদিকে শিখর ধাওয়ান ভাল খেললেও নিয়মিত ব্যবধানে উইকেট পড়ছিল। বাংলাদেশের বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে রানের গতিও ছিল কম। ধাওয়ান ৪১ করে রানআউট হন। শেষ দিকে ক্রুনাল ও ওয়াশিংটন সুন্দরের ব্যাটে ১৪৮ তোলে ভারত।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে শুরুতে লিটন দাস আউট হলেও পার্টনারশিপ গড়েন সৌম্য সরকার ও নঈম। চাহালের বলে নঈম আউট হলে ব্যাট করতে নামেন মুশফিকুর রহিম। প্রথমে সৌম্য ও পরে মাহমুদুল্লাহর সঙ্গে পার্টনারশিপ গড়েন তিনি। শেষ ১২ বলে জিততে দরকার ছিল ২২ রান। খলিল আহমেদের এক ওভারে ১৮ রান তুলে নেন মুশফিকুর। নিজের হাফ সেঞ্চুরি পূর্ণ করলেন তিনি।

ফলে এদিনের ম্যাচ যদি ভেস্তে যায় তাহলে তৃতীয় ম্যাচ জিতলেও সিরিজ জেতা হবে না ভারতের। ভারতীয় খেলোয়াড়রা তাই চাইছেন, যেন খেলাটা হয়। সিরিজে সমতা ফেরাতে মরিয়া রোহিত বাহিনীর মাথায় এখন ‘মহা’ বিপদ।

Share.

Comments are closed.