সোমবার, অক্টোবর ২১

‘বোধহয় বিল মেটায়নি!’ শ্রীলঙ্কা ম্যাচে লোডশেডিং নিয়ে ট্রোলে বিদ্ধ পাক ক্রিকেট বোর্ড

দ্য ওয়াল ব্যুরো: কাশ্মীরের প্রতি সংহতি জানাতে দেশের সমস্ত সরকারি দফতরে লোডশেডিং করার আবেদন জানিয়েছিলেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। সেটা মাস দেড়েক আগে। কিন্তু সেই লোডশেডিং নিয়েই ‘মুখ পুড়ল’ পাকিস্তানের। সোশ্যাল মিডিয়ায় বিদ্রুপের বন্যা বওয়ালেন বহু পাক নাগরিকও।

ব্যাপারটা কী? 

মঙ্গলবার করাচি ন্যাশনাল স্টেডিয়ামে দ্বিতীয় একদিনের ক্রিকেট ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিল পাকিস্তান এবং শ্রীলঙ্কা। কিন্তু সেই ম্যচের শেষ আধঘণ্টায় বারবার লোডশেডিং হল স্টেডিয়ামে। বারবার বন্ধ হল খেলা। কোনও সময় একটি বাতিস্তম্ভের আলো নিভে যায়। আবার কখনও ছ’টি স্তম্ভই বিদ্যুৎহীন হয়ে পড়ে।

এ নিয়েই টুইটারে শুরু হয়েছে ব্যঙ্গ-বিদ্রুপ। কেউ লিখেছেন, “পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড বোধহয় বিদ্যুতের বিল মেটায়নি। তাই এমন হচ্ছে।” কেউ আবার লিখেছেন, “অর্থনৈতিক মন্দার সরাসরি সম্প্রচার হচ্ছিল।” ১০ বছর পর করাচির ন্যাশনাল স্টেডিয়ামে কোনও আন্তর্জাতিক ম্যাচ হল। তবুও ৬৭ রানে ম্যাচ জিতে কিছুটা মান বেঁচেছে পাকিস্তানের।

শ্রীলঙ্কার সঙ্গে দ্বিদেশীয় সিরিজের শুরু থেকেই যেন বিপত্তি পিছু ছাড়ছে না। ২০০৮ সালে পাকিস্তান সফরে শ্রীলঙ্কার টিম বাসে জঙ্গি হামলার পর এই প্রথম লঙ্কা দল পাক সফরে গিয়েছে। যদিও নিরাপত্তার কারণ দেখিয়ে মালিঙ্গা, ম্যাথিউসদের মতো একাধিক প্রথম সারির ক্রিকেটার পাকিস্তান সফরে যাননি। প্রথম ম্যাচটিও বৃষ্টির জন্য ভেস্তে গিয়েছিল। দ্বিতীয় ম্যাচেও বিঘ্ন ঘটাল লোডশেডিং।

Comments are closed.