রবিবার, নভেম্বর ১৭

দিল্লির দূষণে চিন্তিত সৌরভ, মাস্ক পরে প্র্যাকটিস বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের

দ্য ওয়াল ব্যুরো: দিল্লিতে প্রথম টি ২০ ম্যাচ খেলতে চলে এসেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। আর প্রথম দিনের প্র্যাকটিসেই যে ছবি ধরা পড়ল তা চিন্তা বাড়াচ্ছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের। মাস্ক পরে প্যাকটিস করলেন লিটন দাসরা। বছরের এই সময় দিল্লিতে খেলা নিয়ে চিন্তার সুর সৌরভের গলাতেও।

বৃহস্পতিবার প্রথম আউটডোর প্যাকটিস করে বাংলাদেশ। আর প্রথম দিনের প্যাকটিসেই দেখা গেল লিটন দাসের মুখে মাস্ক পরা। ওই অবস্থাতেই পুরো প্র্যাকটিস করলেন তিনি। পরে অবশ্য লিটন জানান, তাঁর শ্বাসকষ্ট রয়েছে। তাই ঝুঁকি না নিয়ে মাস্ক পরে নিয়েছেন। তবে সমস্যায় পড়েন বাংলাদেশের কোচ রাসেল ডোমিঙ্গো। প্র্যাকটিস চলাকালীনই মাঠ ছেড়ে বেরিয়ে যেতে দেখা যায় তাঁকে। পড়ে ম্যানেজমেন্টের তরফে জানানো হয়, চোখ জ্বালা করছিল রাসেলের। শ্বাস নিতেও কষ্ট হচ্ছিল। তাই কিছুক্ষণ পরেই মাঠ ছেড়ে বেরিয়ে যান তিনি।

মুশফিকুর রহিম-সহ দলের কিছু ক্রিকেটার মাস্ক না পড়লেও তাঁরা জানিয়েছেন তাঁদেরও বল দেখতে সমস্যা হচ্ছে। প্র্যাকটিস চলাকালীন ক্যাচ ধরতে সমস্যায় পড়েন তাঁরা। দলের আর কোনও ক্রিকেটারের যাতে কোনও সমস্যা না হয় তার জন্য ম্যানেজমেন্টের তরফে আরও মাস্ক নিয়ে আসার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দিল্লির দূষণ সূচক ছিল ৪০০-র কাছে। এই দূষণ সূচককে ‘ভেরি পুওর কোয়ালিটি’ বলা হয়ে থাকে। ৪০০-র বেশি হয়ে গেলেই তখন তা ‘সিভিয়ার কোয়ালিটি’ হয়ে যাবে। তবে জানানো হয়েছে, রাতে আলোর মধ্যে খেলা হলে বল দেখতে সমস্যা হবে না ক্রিকেটারদের। যদিও এই পরিবেশে খেলা ক্রিকেটারদের স্বাস্থ্যে প্রভাব ফেলতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

চিন্তা প্রকাশ করেছেন বিসিসিআইয়ের প্রেসিডেন্ট সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ও। তিনি জানিয়েছেন, নতুন কমিটি দায়িত্ব নেওয়ার পর ম্যাচের ভেন্যু বদলের কোনও সুযোগ ছিল না। কারণ, একটা ম্যাচ হওয়ার আগে অনেক রকমের প্রস্তুতি থাকে। সেগুলো নেওয়া হয়ে গিয়েছিল। কিন্তু এরপরে দীপাবলির পরে দিল্লিতে খেলা ফেলার ক্ষেত্রে অনেক বেশি সতর্ক থাকবে বিসিসিআই। বাস্তব পরিস্থিতি বুঝে তারপরেই খেলার ভেন্যু নির্বাচন করা হবে বলে জানিয়েছেন সৌরভ।

পড়ুন ‘দ্য ওয়াল’ পুজো ম্যাগাজিন ২০১৯–এ প্রকাশিত গল্প

Comments are closed.