শুক্রবার, জানুয়ারি ১৮

ভারতীয় ফুটবলের পরিচয় মোহনবাগানের ‘অমর একাদশ’, স্বীকৃতি দিল ফিফাও

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বৃহস্পতিবার রাতে দুবাইয়ের মাঠে সংযুক্ত আরব আমিরশাহীর বিরুদ্ধে খেলতে নামবেন সুনীল-জেজেরা। তার কয়েক ঘণ্টা আগে ফিফার তরফে এল সেই বার্তা। সঙ্গে স্বীকৃতি দেওয়া হলো মোহনবাগানের ‘অমর একাদশ’কেও।

আরও পড়ুন এমনও হয়! এক বলে বাকি ৬ রান, ছ’টা বল করে জেতালেন বোলার

ফিফার অফিসিয়াল টুইটার হ্যান্ডেলে এ দিন ভারত বনাম সংযুক্ত আরব আমিরশাহীর ম্যাচের কথা ঘোষণা করে ফিফা। বলা হয় প্রথম ম্যাচে তাইল্যান্ডকে ৪-১ গোলে হারানোর পর নিশ্চয় এ দিনও জয়ের জন্য মুখিয়ে থাকবে ভারত। সেই সঙ্গে মোহনবাগানের আইএফএ শিল্ডজয়ী ‘অমর একাদশে’র ছবিও দেওয়া হয় ফিফার তরফে। সঙ্গে লেখা “১০৮ বছর আগে প্রথম ভারতীয় ক্লাব হিসেবে মোহনবাগানের আইএফএ শিল্ড জয়ের এঁরাই তারকা।”

১৯১১ সালে অবিভক্ত ভারতে নেটিভ ক্লাব হিসেবে খেলেছিল মোহনবাগান। ফাইনালে খালি পায়ে ইস্ট-ইয়র্কশায়ার রেঞ্জার্সদের ২-১ গোলে পরাজিত করে প্রথম ভারতীয় ক্লাব হিসেবে আইএফএ শিল্ড জেতে মোহনবাগান। গোল করেছিলেন অধিনায়ক শিবদাস ভাদুড়ী ও অভিলাষ ঘোষ। শুধুমাত্র জয় নয়, ব্রিটিশদের বিরুদ্ধে মোহনবাগানের লড়াই তখন স্বাধীনতা যুদ্ধের থেকে কোনও অংশে কম ছিল না।

ঘটি-বাঙাল নির্বিশেষে শিবদাস ভাদুড়ী, বিজয়দাস ভাদুড়ী, রেভারেন্ড সুধীর চট্টোপাধ্যায়, অভিলাষ ঘোষ, হীরালাল মুখোপাধ্যায়, ভূতি সুকুল, মনমোহন মুখোপাধ্যায়, নীলমাধব ভট্টাচার্য্য, রাজেন্দ্রনাথ সেনগুপ্ত, জ্যোতিন্দ্রনাথ ( কানু ) রায়, শিরীষচন্দ ( হাবুল ) সরকারদের লড়াই ছিল আপামর বাঙালির যুদ্ধ। আর সেই যুদ্ধে জিতে ভারতের ফুটবল ইতিহাসে প্রথম মাইলস্টোন স্থাপন করে মোহনবাগান।

সেই কৃতিত্বকেই এ দিন যেন স্বীকৃতি দেওয়া হলো ফিফা’র তরফে। ফুটবল মানচিত্রে অনেক পিছনের সারিতে থাকা ভারতের প্রথম ক্লাবকে এ ভাবে স্বীকৃতি দেওয়ায় সবুজ-মেরুন সমর্থকেরা নিশ্চয় গর্ববোধ করেছেন।

কিন্তু সুনীলদের লড়াইয়ের আগেই এই ছবি দিয়ে কি পরোক্ষে সুনীলদেরই আরও তাতিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করা হলো ফিফার তরফে। খালি পায়ে ব্রিটিশদের বিরুদ্ধে এগারো জন বাঙালি যে লড়াই করেছিল, সেই লড়াই থেকে উদ্বুদ্ধ হয়ে চলতি এএফসি কাপে যাতে ভারতও ভালো পারফরম্যান্স করে, সেটাই চাইছে ফিফা।

বিগত বছরে বেশ কয়েকবার ফিফার তরফে ভারতকে ফুটবলের ‘ঘুমন্ত দৈত্য’ বলে উল্লেখ করা হয়েছে। ইপিএল, লা লিগা, ইতালিয়ান সিরি এ’র বিভিন্ন ক্লাব বর্তমানে ভারতে লগ্নি করছে। সেটা হয়তো এ দেশের ফুটবল প্রতিভা দেখে। আর তাই সেই দেশের ফুটবলের প্রথম কৃতিত্বকে স্বীকৃতি দিল ফিফা।

The Wall-এর ফেসবুক পেজ লাইক করতে ক্লিক করুন 

Shares

Comments are closed.