শুক্রবার, নভেম্বর ২২
TheWall
TheWall

সৌরভের পর সিএবি সভাপতি কে? দৌড়ে স্নেহাশিসের থেকে এগিয়ে অভিষেক ডালমিয়া

দ্য ওয়াল ব্যুরো: টানটান থ্রিলারে শেষ মুহূর্তে বাজিমাত করেছেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। হয়েছেন বিসিসিআই-এর প্রেসিডেন্ট। আর তিনি দেশের ক্রিকেট বোর্ডের প্রসিডেন্ট হওয়ার পরেই জল্পনা শুরু হয়েছে তাহলে বাংলার ক্রিকেট বোর্ড কার হাতে যাবে? কে হবেন সিএবির প্রেসিডেন্ট। সচিব অভিষেক ডালমিয়া? না কি সৌরভের দাদা স্নেহাশিস গঙ্গোপাধ্যায় যাবেন ভাইয়ের পদে? উঠে আসছে প্রাক্তন কোষাধ্যক্ষ বাবলু কোলের নামও। তবে বাকি দু’জনকে পিছনে ফেলে দৌড়ে অনেকটাই এগিয়ে রয়েছেন জগমোহন ডালমিয়া পুত্র অভিষেক।

২০১৫ সালে সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় যখন বাংলার ক্রিকেট বোর্ডের দায়িত্ব পান, তখন তাঁর সঙ্গে সচিব হয়েছিলেন অভিষেক। প্রশাসনে সেটাই ছিল অভিষেকের প্রথম পদক্ষেপ। জগমোহন ডালমিয়ার মৃত্যুর পর তাঁর হাত ধরেই ফের প্রশাসনে এসেছিল ডালমিয়া পরিবার। তাই যখন সৌরভ প্রেসিডেন্টের পদ ছাড়বেন তখন অভিষেকই সেই পদ পাওয়ার ক্ষেত্রে এগিয়ে রয়েছেন বলে শোনা যাচ্ছে সিএবি সূত্রে।

অভিষেক ডালমিয়াকে সিএবির প্রেসিডেন্ট করার পিছনে অনেকগুলি কারণ রয়েছে বলেই মনে করছে ক্রিকেট মহল। এক, সৌরভের সঙ্গে ডালমিয়া পরিবারের সম্পর্ক খুবই ঘনিষ্ঠ। সিএবি ও বিসিসিআইয়ের প্রেসিডেন্ট থাকাকালীন জগমোহন ডালমিয়ার স্নেহধন্য ছিলেন মহারাজ। পরেও যখনই সুযোগ পেয়েছেন সৌরভের হয়ে কথা বলতে শোনা গিয়েছে ডালমিয়াকে। তাই তাঁর মৃত্যুর পরে কার্যত অভিষেকের অভিভাবকের ভূমিকা পালন করেছেন সৌরভ। প্রথমে দিল্লি ও তারপর মুম্বইয়ে সৌরভের সঙ্গী হয়েছেন অভিষেকই। এমনকি তাঁর মনোনয়নে সইও করেছেন তিনি। তাই নিজের জায়গায় অভিষেককেই বসাতে চান সৌরভ, এমনই গুঞ্জন বাংলার ক্রিকেট মহলে।

দুই, স্নেহাশিস গঙ্গোপাধ্যায় সৌরভের দাদা হওয়ায় তিনি যদি প্রেসিডেন্ট হন, তাহলে পরিবারতন্ত্রের অভিযোগ তুলতে পারে প্রাক্তন ভারত অধিনায়কের বিপক্ষ লবি। একদিকে দেশের ক্রিকেট বোর্ডে ভাই ও অন্যদিকে রাজ্যের ক্রিকেট বোর্ডের মাথায় দাদা বসলে সেটা আখেরে হিতে বিপরীত হতে পারে সৌরভের কাছে। তাই তিনিও চান না এটা হোক।

বাংলার ক্রিকেট মসনদে কে বসবে তা নিয়ে শেষ সিদ্ধান্ত নেবেন দাদা। মঙ্গলবার বিকেল ৫টা নাগাদ শহরে পা রাখার কথা তাঁর। সিএবিতে সাজোসাজো রব। বাংলার গর্বকে বরণ করে নেওয়ার জন্য। আর শহরে পা রাখার পরে ২৩ অক্টোবরের মধ্যেই নিজের বিকল্প ঘোষণা করবেন মহারাজ। তাতে খুব একটা অঘটন না ঘটলে সেই পদে বসছেন অভিষেক ডালমিয়া।

পড়ুন, দ্য ওয়ালের পুজোসংখ্যার বিশেষ লেখা…

গান্ধীজির ট্যাঁকঘড়িটা চুরি গেল

Comments are closed.