শনিবার, অক্টোবর ১৯

ট্রাফিক চালানের ভয়ে হেলমেটেই লাইসেন্স, ইনস্যুরেন্স সেঁটে ঘুরছেন ভদোদরার যুবক

দ্য ওয়াল ব্যুরো: ট্রাফিক ফাইনের হাত থেকে বাঁচতে এ বার হেলমেটের মধ্যেই সমস্ত নথি আঠা দিয়ে সেঁটে রাখলেন এক যুবক। জানা গিয়েছে, আর শাহ নামের ওই যুবক গুজরাতের ভদোদরার বাসিন্দা।

হালফিলে ট্রাফিক রুল ভাঙলেই হাতেনাতে মিলছে শাস্তি। সেপ্টেম্বরের শুরু থেকে চালু হওয়া নয়া মোটর ভেহিকেল অ্যাক্ট অনুযায়ী ট্রাফিকের নিয়ম ভাঙলেই চালান কেটে ধরিয়ে দিচ্ছেন দায়িত্বে থাকা পুলিশকর্মী। দেশজুড়ে চলছে ব্যাপক ধরপাকড়। কোথাও কোথাও ফাইনের বহর দেখে চোখ কপালে উঠেছে আম জনতার।

তাই রাস্তায় বেরিয়ে এসব হ্যাপা এড়ানোর জন্য এক দারুণ উপায় বের করেছেন ভদোদরার ওই ব্যক্তি। সংবাদ সংস্থা এএনআই সূত্রে খবর, নিজের হেলমেটে ড্রাইভিং লাইসেন্স, রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেট, ইনস্যুরেন্সের কাগজপত্র এবং প্রয়োজনীয় বাকি সব ডকুমেন্ট আঠা দিয়ে সেঁটে রেখেছেন মিস্টার শাহ।

কিন্তু কেন এমন করলেন ওই যুবক?

আর শাহের স্পষ্ট জবাব, “প্রতিদিন বেরনোর সময় বাইকে ওঠার আগে হেলমেটটাই পরি। তাই ওতেই সব আটকে রেখেছি। যাতে রাস্তায় তাড়াহুড়োর সময় কোনও ঝামেলায় পড়তে না হয়। আমি কোনও ফাইন দিতে চাই না।” ইতিমধ্যেই আর শাহের এই কীর্তি ভাইরাল হয়েছে নেট দুনিয়ায়। গুজরাতের ব্যক্তির কাণ্ডকারখানা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রচুর মিম-ও বানিয়ে ফেলেছেন নেটিজেনরা।

Comments are closed.