মঙ্গলবার, সেপ্টেম্বর ১৭

শ্যুটিং সেটে বাতিল প্লাস্টিকের বোতল, টিম ‘কুলি নম্বর ১’-এর সিদ্ধান্তকে কুর্নিশ মোদীর

দ্য ওয়াল ব্যুরো: শ্যুটিং সেটে প্লাস্টিকের বোতল বাতিল করল ‘কুলি নম্ব ১’-এর কাস্ট অ্যান্ড ক্রু মেম্বাররা। প্লাস্টিকের বদলে কলাকুশলীরা এ বার থেকে জল খাবেন স্টিলের বোতলে। টুইট করে এ কথা জানিয়েছেন, স্বয়ং ছবির অভিনেতা বরুণ ধাওয়ান। লিখেছেন, “প্লাস্টিক মুক্ত সমাজ সকলের জন্য প্রয়োজন। প্রধানমন্ত্রী এ ব্যাপারে উদ্যোগ নিয়েছেন। আমরা সকলেই ছোট ছোট পরিবর্তনের মাধ্যমেই আমরা এই বিষোয়ে সফল হতে পারি।”

এ দিন টুইট করে বরুণ শেয়ার করেছেন গোটা টিমের ছবি। সকলেই হাতে স্টিলের বোতল আর একগাল হাসি নিয়ে বেশ পোজও দিয়েছেন। বরুণ ছাড়াও ছবিতে রয়েছে ছবির পরিচালক এবং অভিনেতার বাবা ডেভিড ধাওয়ান। রয়েছেন ছবির মেন ফিমেল লিড সারা আলি খানও।

বুধবারই সদ্য সদ্য ‘স্বচ্ছতা হি সেবা ৩.০’ ক্যাম্পেন লঞ্চ করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এই মিশনের একটা লক্ষ্য। দেশকে প্লাস্টিক মুক্তি করা। তার জন্য স্লোগান একটাই, ‘সে নো টু প্লাস্টিক’। এ বার সেই পথেই হাঁটল বলিউডও। প্রধানমন্ত্রীর নতুন প্রচার শুরুর ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই শ্যুটিং সেটে প্লাস্টিকে বোতল বাতিলের সিদ্ধান্ত নিয়েছে টিম ‘কুলি নম্বর ১’। বি-টাউনের এই সিদ্ধান্তে খুশি মোদীও। বরুণের টুইটের বদলে শুভেচ্ছা জানিয়েছে প্রধানমন্ত্রী লিখেছেন, “দেশে সিঙ্গল-ইউজ় প্লাস্টিক ব্যবহার বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলিউড। এই সিদ্ধান্তে আমি খুবই আনন্দিত। দারুণ কাজ করেছেন টিম কুলি নম্বর ১।”

গান্ধী জয়ন্তী অর্থাৎ ২ অক্টোবর থেকে ছ’টি প্লাস্টিক পণ্যের উপর দেশব্যাপী নিষেধাজ্ঞা জারির সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্র। প্লাস্টিকের ব্যাগ, কাপ, প্লেট, ছোট বোতল, স্ট্র এবং নির্দিষ্ট ধরণের স্যাচেটের ব্যবহার নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হবে। নিষেধাজ্ঞার ফলে ভারতে প্লাস্টিকের বার্ষিক ব্যবহারের পরিমাণ হ্রাস পাবে বলে মনে করা হচ্ছে। প্রায় ১৪ মিলিয়ন টন বা প্রায় পাঁচ শতাংশ কমে যাবে প্লাস্টিকের ব্যবহার। ভারত যেমন সিঙ্গল-ইউজ় প্লাস্টিক ব্যবহার বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে, গোটা বিশ্বেরই সেই পথে হাঁটা উচিত।– এই দাবি তুলেই রাষ্ট্রসঙ্ঘের জলবায়ু সম্মেলনে বক্তৃতা করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

গবেষণা বলছে, প্লাস্টিক দূষণ নিয়ে সারা বিশ্বে সমস্যা বাড়ছে। সারা বিশ্বের যত প্লাস্টিক বর্জ্য উৎপাদিত হচ্ছে, তার প্রায় ৫০ শতাংশ সমুদ্রে গিয়ে মিশছে, ক্ষতি করছে সামুদ্রিক প্রাণীদের। ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন ইতিমধ্যেই সিদ্ধান্ত নিয়েছে, ২০২১ সালের মধ্যে প্লাস্টিকের স্ট্র, চামচ, ছুরি, কটন বাড– এ সব নিষিদ্ধ করা হবে।

Comments are closed.