বুধবার, মার্চ ২০

আঁখ মারে’-র সঙ্গে শরদ পওয়ারের দলের সাংসদের সে কী নাচ! ভিডিও ভাইরাল

দ্য ওয়াল ব্যুরো: রাজনীতিতে শালীনতার পাঠ অনেক আগেই চুকিয়ে দিয়েছেন রাজনীতিকদের একাংশ। ইদানীং একাধিক ঘটনায় দেখা যাচ্ছে ণত্বসত্বও হারিয়ে ফেলছেন অনেকেই।

যেমনটা হল রবিবার। মহারাষ্ট্রের ভাণ্ডারায় একটি স্কুলের অনুষ্ঠান চলছিল। দেখা গেল, ওই অনুষ্ঠানে মঞ্চের উপর চটুল হিন্দি গানের সঙ্গে স্কুল ছাত্রীদের সঙ্গে নাচছেন খোদ এলাকার সাংসদ মধুকর কুকড়ে। কী সেই গান? ‘আঁখ মারে ও লড়কি আঁখ মারে’-গানের রিমেক। যেটা রণবীর সিংহের সদ্য মুক্তি পাওয়া ছবি সিম্বায় সুপারহিট হয়েছে।

স্কুলের অনুষ্ঠানে ‘আঁখ মারে’ গানের সঙ্গে নাচ মঞ্চস্থ হতে পারে কিনা তা নিয়েই প্রশ্ন তুলেছেন মারাঠা মুলুকের রক্ষণশীলরা। কিন্তু তার থেকেও বেশি সমালোচনা শুরু হয়েছে কুকড়ের নাচ নিয়ে।

প্রবীণ এই রাজনীতিক আগে বিজেপি-তে ছিলেন। ২০১৭ সালে বিজেপি-র ভাণ্ডারা-গোন্ডিয়ার সাংসদ নরেন্দ্র মোদীর তীব্র সমালোচনা করে দল ছাড়েন। তাই সেখানে উপ নির্বাচন অনিবার্য হয়ে ওঠে। এবং সেই উপ নির্বাচনে এনসিপি থেকে টিকিট পেয়ে তাঁর পুরনো দলের প্রার্থীকে ৪৮ হাজার ভোটে পরাস্ত করেছিলেন মধুকর।

এর আগে বিহার, উত্তরপ্রদেশের গাঁ-দেহাতে এ ধরনের ঘটনা আখছার দেখা যেত। কোথাও হিন্দি গানের সঙ্গে মঞ্চে নাচছেন পুলিশ কর্তা, কোথাও স্থানীয় রাজনীতিক। কিন্তু মহারাষ্ট্রে এ ধরনের ঘটনা এই প্রথম। তাও এক জন প্রবীণ সাংসদ এই কাণ্ড ঘটানোয় আরও হই চই পড়ে গিয়েছে।

ঘটনায় অস্বস্তিতে পড়েছে শরদ পওয়ারের দল এনসিপি। দলের মুখপাত্র ডিপি ত্রিপাঠি বলেন, কাণ্ডজ্ঞানহীন কাজ করেছেন মধুকর। ওনার উচিত এলাকার মানুষের থেকে ক্ষমা চেয়ে নেওয়া।

শুধু মহারাষ্ট্র নয়, দিল্লিতেও এই ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। সংসদের শীতকালীন অধিবেশন চলছে। সোমবার অধিবেশন বসার আগে দেখা গেল, সাংসদদের অনেকেরই মোবাইলে মোবাইলে ঘুরছে ওই ভিডিও।

Shares

Comments are closed.