ট্রাম্পরা খাবেন স্যালমন টিক্কা, ডাল রাইসিনা, রাবড়ি, রাষ্ট্রপতি ভবনে নৈশভোজের এলাহি আয়োজন

স্যালমন টিক্কা থেকে বিরিয়ানি,  পোলাও-মটন কষা কমতি নেই কিছুরই। তবে এদিনের নৈশভোজে নজর কাড়বে রাষ্ট্রপতি ভবনের বিশেষ পদ ডাল-রাইসিনা।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

    দ্য ওয়াল ব্যুরো: গুজরাতি খানার পর এবার পাক্কা মোগলাই ঘরানায় আপ্যায়ণ করা হবে ট্রাম্প-দম্পতিকে। রাষ্ট্রপতি ভবনে নৈশভোজে মার্কিন প্রেসিডেন্টের জন্য থাকছে এলাহি আয়োজন। ট্রাম্প ও তাঁর পরিবারকে খুশি করতে প্লেট সাজছে বাহারি আমিষ পদে। আমেরিকান কুইসিনের সঙ্গে ভারতীয় মোগলাই পদের মিলমিশ দেখা যাবে এদিন রাষ্ট্রপতি ভবনের নৈশভোজে। স্যালমন টিক্কা থেকে বিরিয়ানি,  পোলাও-মটন কষা কমতি নেই কিছুরই। তবে এদিনের নৈশভোজে নজর কাড়বে রাষ্ট্রপতি ভবনের বিশেষ পদ ডাল-রাইসিনা।

    মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ভারত সফরের আজ দ্বিতীয় দিন বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ সাউথ ব্লকের কাছে। বেশ কয়েকটি বিষয় চুক্তি হতে পারে ট্রাম্প-মোদীর। যার মধ্যে নজর রয়েছে বাণিজ্য চুক্তি। এদিন সকালে রাষ্ট্রপতি ভবনে সস্ত্রীক ট্রাম্পকে অভ্যর্থনা জানান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ। সেখান থেকে ট্রাম্পের কনভয় পৌঁছয় রাজঘাটে। মহাত্মা গান্ধীর স্মৃতিসৌধে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করে রাজঘাটে বৃক্ষরোপণও করেন ট্রাম্প-দম্পতি। সেখান থেকে পৌঁছন হায়দরাবাদ হাউসে। এখানেই আজ দুই রাষ্ট্রপ্রধানের বৈঠক হওয়ার কথা। থেকে রাজঘাট ঘুরে সস্ত্রীক ট্রাম্প পৌঁছেছেন হায়দরাবাদ হাউসে। দুই রাষ্ট্রপ্রধানের বৈঠক হবে এখানেই।

    সন্ধ্যায় সপরিবারে রাষ্ট্রপতি ভবনের ব্যাঙ্কোয়েট হলে বিশেষ ডিনারের ব্যবস্থা থাকবে। নিরামিষ স্টার্টার দিয়ে শুরু করে মেন কোর্সে নানা রকম আমিষ পদ। সূত্রের খবর, স্টার্টারের থাকবে আলু টিক্কা, পালক চাট, স্যুপ, লেমন টার্ট। রেড মিট বিশেষ পছন্দ মার্কিন প্রেসিডেন্টের। তাঁর রুচির কথা মাথায় রেখেই থাকছে রান আলিশান। সঙ্গে বিরিয়ানি। তাছাড়া থাকবে পোলাও, গুচ্চি, স্যালমন টিক্কা। রাষ্ট্রপতি ভবনের ৩২ জন সেফ দায়িত্ব পেয়েছেন এই আয়োজনের। ডিনারে নজর কাড়বে ডাল রাইসিনা। রাষ্ট্রপতি ভবনের এই বিশেষ ডিশরে আবিষ্কর্তা প্রাক্তন সেফ মচিন্দ্রা কাস্তোরে।  নিয়োগ করেছিলেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রতিভা পটেল। ২০০৭ সাল থেকে ২০১৫ সাল রাইসিনা হিলের রান্নার দায়িত্ব সামলেছেন মচিন্দ্রা। আর তখনই ডাল রাইসিনা প্রথম রান্না করেন তিনি। মূলত অড়হড় ডাল দিয়েই এই বিশেষ পদটি তৈরি হয়। সঙ্গে থাকে আরও অনেক রকমের মশলা। তবে রেসিপি গোপন।

    মিষ্টিমুখেও থাকছে চমক। সেখানেও ভারতীয় ও আমেরিকানের প্ল্যাটারের মিলমিশ। মালপোয়া, রাবড়ির সঙ্গে পাতে পড়বে অ্যাপেল পাই ও ভ্যানিলা আইসক্রিম। চা, কফি, মিষ্টি পান তো রয়েছেই।

    ট্রাম্পের ভারত সফরের প্রথম দিনটা শুরু হয়েছিল গুজরাতের সবরমতী আশ্রম থেকে। সেখানে গাঁধীজির ছবিতে মাল্যদান, স্ত্রীকে পাশে নিয়ে চরকা কাটা এবং শেষে গোটা আশ্রম ঘুরে দেখেন ট্রাম্প। কিছু ক্ষণ সময় কাটিয়ে চলে যান মোতেরা স্টেডিয়ামে ‘নমস্তে ট্রাম্প’-এর মঞ্চে। ওই মঞ্চ থেকেই প্রশংসায় ভরিয়ে দেন মোদীকে। তুলে ধরেন ভারত-আমেরিকার মজবুত সম্পর্কের কথা। সন্ত্রাসবাদ থেকে প্রতিরক্ষা সবেতেই দু’দেশের পারস্পরিক সহযোগিতার কথা উঠে আসে ট্রাম্পের বক্তব্যে।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

You might also like

Comments are closed, but trackbacks and pingbacks are open.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More