রবিবার, অক্টোবর ২০

চন্দ্রযানের জন্য ইসরো ও ভারতকে শুভেচ্ছা জানালেন প্রথম পাক মহিলা মহাকাশচারী

  • 2.2K
  •  
  •  
    2.2K
    Shares

দ্য ওয়াল ব্যুরো: পাকিস্তানের প্রথম মহিলা মহাকাশচারী তিনি। যদিও পাকিস্তানে না থেকে মোনাকোতে থাকেন। বিশ্বের প্রথম বেসরকারি সংস্থার হয়ে মহাকাশেও পাড়ি দিয়েছেন তিনি। এ হেন নামিরা সালিম ভারতের চন্দ্রযান ২ অভিযানের পর শুভেচ্ছা জানালেন ইসরোকে। তাঁর বক্তব্য, ইসরোর এই সাফল্য মহাকাশ গবেষণার নতুন নতুন দিক খুলে দেবে।

সম্প্রতি এক আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের সামনে নামিরা বলেন, “আমি ভারত ও ইসরোকে শুভেচ্ছা জানাতে চাই। চাঁদের দক্ষিণ মেরুতে অবতরণের যে চেষ্টা ভারত করেছিল, সেটা ঐতিহাসিক পদক্ষেপ। এই চন্দ্রযান ২ অভিযান সত্যিই মহাকাশ গবেষণার ক্ষেত্রে একটা বিশাল পদক্ষেপ। এতে শুধু ভারত নয়, শুধু দক্ষিণ-পশ্চিম এশিয়া নয়, গোটা বিশ্বের লাভ হবে।”

স্যার রিচার্ড ব্র্যানসনস ভার্জিন গ্যালাকটিক স্পেসলাইন থেকে মহাকাশে পাড়ি দিয়েছিলেন নামিরা। তিনি আরও বলেন, “আমার মনে হয়, মহাকাশে কোনও উন্নতি হলে সেটা কোনও দেশ বা অঞ্চলের উপর নির্ভর করে না। সেটা গোটা পৃথিবীর উন্নতি করে। কারণ, পৃথিবীর উপর আমরা বিভিন্ন দেশে বিভক্ত হলেও মহাকাশটা কিন্তু আমাদের সবার এক।”

২০০৭ সালে উত্তর মেরু ও ২০০৮ সালে দক্ষিণ মেরু অভিযান করেছিলেন নামিরা। ২০০৮ সালে তিনিই প্রথম মহিলা যিনি মাউন্ট এভারেস্টের উপর স্কাইডাইভ করেছিলেন। বরাবরই মহাকাশ গবেষণায় শান্তি ও ঐক্যের ব্যাপারে সরব হয়েছেন নামিরা। ফের একবার সরব হলেন তিনি।

Comments are closed.