দেশে মোট আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ৬০ লাখ, তবে সুস্থও হয়েছেন ৪৯ লক্ষের বেশি

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

দ্য ওয়াল ব্যুরো: কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রকের বুলেটিন অনুসারে আজ রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর সকাল ৮টা পর্যন্ত ভারতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫৯,৯২,৫৩২। এখনও পর্যন্ত কোভিড সংক্রমণে দেশে মৃত্যু হয়েছে মোট ৯৪,৫০৩ জনের। সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়ে এ যাবৎ হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেয়েছেন ৪৯,৪১,৬২৭ জন। ভারতে এখন অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ৯,৫৬,৪০২।

গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৮৮,৬০০ জন। সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ১১২৪ জনের। সুস্থ হয়েছেন ৯২,০৪৩ জন। ভারতে এখন সুস্থতার হার ৮২.৪৬ শতাংশ এবং মৃত্যুহার ১.৫৮ শতাংশ। ভারতে এখন দৈনিক সংক্রমণের থেকে সুস্থতার সংখ্যা বেশি।

মহারাষ্ট্র, অন্ধ্রপ্রদেশ, তামিলনাড়ু, কর্নাটক এবং উত্তরপ্রদেশ—-এই পাঁচ রাজ্যে করোনার প্রভাব সর্বাধিক। গত ২৪ ঘণ্টায় এই ৫ রাজ্যেই সবচেয়ে মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এই রাজ্যগুলিতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৪৯,১৭৬। যা গত ২৪ ঘণ্টায় দেশের আক্রান্তের সংখ্যার ৫৫.৫০ শতাংশ। গত ২৪ ঘণ্টায় সারা দেশে ৯,৮৭,৮৬১ জনের কোভিড টেস্ট হয়েছে।

বিশ্বের কোভিড পরিসংখ্যানে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ভারত। প্রথম স্থানে রয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে। বিশ্বে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৩ কোটি ৩০ লক্ষেরও বেশি। সংক্রমণে মৃতের সংখ্যা প্রায় ১০ লক্ষ। আর সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়েছেন ২ কোটি ৪৪ লক্ষেরও বেশি মানুষ।

ভারতের কোভিড পরিসংখ্যানে শীর্ষে রয়েছে মহারাষ্ট্র। এখানে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১৩,০০,৭৫৭। কোভিড সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ৩৪,৭৬১ জনের। সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়েছে ৯,৯২,৮০৬ জন। মহারাষ্ট্রে অ্যাকটিভ কেস ২,৭৩,১৯০।

দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে অন্ধ্রপ্রদেশ। সেখানে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৬,৬১,৪৫৮। কোভিড সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ৫৬০৬ জনের। সুস্থ হয়ে হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেয়েছেন ৫,৮৮,১৬৯ জন। অন্ধ্রপ্রদেশে অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ৬৭,৬৮৩।

তৃতীয় স্থানে রয়েছে তামিলনাড়ু। এখানে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৫,৬৯,৩৭০ জন। মৃত্যু হয়েছে ৯১৪৮ জনের। সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৫,১৩,৮৩৬ জন। তামিলনাড়ুতে অ্যাকটিভ কেস ৪৬,৩৮৬।

চতুর্থ স্থানে রয়েছে কর্নাটক। এখানে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৫,৫৭,২১২ জন। কোভিড সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ৮৪১৭ জনের। সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়েছেন ৪,৫০,৩০২ জন। কর্নাটকে অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ৯৮,৪৯৩।

পঞ্চম স্থানে রয়েছে উত্তরপ্রদেশ। সেখানে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৩,৭৮,৫৩৩। মৃত্যু হয়েছে ৫৪৫০ জনের। কোভিড সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৩,১৩,৬৮৬ জন। উত্তরপ্রদেশে অ্যাকটিভ কেস ৫৯,৩৯৭।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

You might also like

Comments are closed, but trackbacks and pingbacks are open.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More