শুক্রবার, নভেম্বর ১৫

৭২ ঘণ্টা নয়, ৭২ দিনের জন্য ব্যান করা উচিত মোদীকে : অখিলেশ

দ্য ওয়াল ব্যুরো: সোমবার বাংলায় শ্রীরামপুর ও ভাটপাড়ার জোড়া সভা থেকে তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে তোপ দেগেছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। বলেছিলেন, লোকসভা মিটলেই তৃণমূলের ৪০ জন বিধায়ক বিজেপিতে যোগ দেবে। ভোটপর্ব চলাকালীন এই মন্তব্য করার জন্য মোদীর বিরুদ্ধে সুর চড়িয়েছে তৃণমূল। নির্বাচন কমিশনের কাছে তারা দাবি জানিয়েছে মোদীর প্রার্থীপদ বাতিলের জন্য। তারমধ্যেই এ বার এই বিষয়ে আক্রমণাত্মক উত্তরপ্রদেশের প্রাক্তণ মুখ্যমন্ত্রী তথা সপা নেতা অখিলেশ যাদব। বললেন, এই ধরণের মন্তব্যের জন্য নির্বাচন কমিশনের উচিত, মোদীর উপর ৭২ বছরের জন্য নিষেধাজ্ঞা জারি করা।

নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে মুখ খোলেন অখিলেশ। বলেন, “বিকাশ প্রশ্ন করছে, আপনারা কি শুনতে পাচ্ছেন কী ধরণের অপমানজনক মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী। ১২৫ কোটি মানুষের বিশ্বাস হারানোর পর এখন ৪০ বিধায়ক ভাঙিয়ে নেওয়ার মতো নোংরা খেলায় নেমেছেন উনি। এই কথায় মোদীর মানসিকতার পরিচয় পাওয়া যাচ্ছে। মোদীকে ৭২ ঘণ্টা নয়, ৭২ বছরের জন্য ব্যান করা উচিত।”

সোমবার প্রথমে শ্রীরামপুর ও তারপর ভাটপাড়ার নির্বাচনী সভায় দাঁড়িয়ে মোদী বলেন, “দিদি, দিল্লি দূর হ্যায়।” তারপরেই বিধায়কদের প্রসঙ্গ তুলে আনেন তিনি। বলেন, তৃণমূলের ৪০ জন বিধায়ক আমার সঙ্গে যোগাযোগ রেখে চলছেন। লোকসভার নির্বাচন মিটে গেলেই তাঁরা তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেবেন। মোদীর কটাক্ষ, তারপরে তো বাংলাতেই ক্ষমতা ধরে রাখতে পারবেন না মমতা, তাহলে তিনি কীভাবে দিল্লি যাবেন। তারপর অবশ্য মোদী বলেন, মমতার আসল উদ্দেশ্য অবশ্য দিল্লি যাওয়া নয়, আসল উদ্দেশ্য ভাইপো অর্থাৎ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের জায়গা পাকা করে দেওয়া।

মোদীর এই মন্তব্যের পরেই বিক্ষোভ শুরু হয় তৃণমূলে। তৃণমূলের তরফে অভিযোগ করা হয়, ঘোড়া কেনা-বেচার রাজনীতি করছেন মোদী। মঙ্গলবার নির্বাচন কমিশনের কাছে অভিযোগও জানিয়েছে তৃণমূল। মোদীর প্রার্থীপদ খারিজ করে দেওয়ার দাবি জানানো হয়েছে। দিন কয়েক আগেই উস্কানিমূলক মন্তব্য করায় উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথকে ৭২ ঘণ্টা ও বসপা নেত্রী মায়াবতীকে ৪৮ ঘণ্টার জন্য ব্যান করেছিল কমিশন। পঞ্জাবের কংগ্রেস নেতা সিধুকেও ৭২ ঘণ্টার জন্য নিষিদ্ধ করা হয়। এখন দেখার বিরোধীদের এই লাগাতার অভিযোগের পর নির্বাচন কমিশনের তরফে কোনও ব্যবস্থা নেওয়া হয় কিনা।

আরও পড়ুন

প্রেস ডেকে রাজনীতি করেছেন অনুব্রত, অনুপমের সঙ্গে সাক্ষাৎ নিয়ে বললেন মকুল

Comments are closed.