বুধবার, জুন ১৯

মিলল বুথ ফেরত সমীক্ষা, লাইভ টিভিতে হাউহাউ করে কাঁদলেন অ্যাক্সিস মাই ইন্ডিয়ার সেফোলজিস্ট

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বুথ ফেরত সমীক্ষার পূর্বানুমান মিলে গেছে প্রায় ১০০ শতাংশ। ইন্ডিয়া টুডে-র লাইভ টেলিকাস্টে একের পর এক প্রশংসা করে চলেছেন সঞ্চালক। তাঁর পাশেই বসে তখন হাউ হাউ করে কেঁদে চলেছেন অ্যাক্সিস মাই ইন্ডিয়ার চেয়ারম্যান প্রদীপ গুপ্ত। তাঁর থুড়ি তাঁর সংস্থার সমস্ত অনুমানই যে মিলে গেছে প্রায় অক্ষরে অক্ষরে। চোখে জল আর মুখে হাসি নিয়েই আবেগে ভাসলেন এই দক্ষ সেফোলজিস্ট।

সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনের শেষ দফার ভোট হয়েছে গত রবিবার। তার পর সে দিন বিকেলেই কমবেশি প্রায় ১৪টি বুথ ফেরত সমীক্ষা প্রকাশ হয়েছিল। বরাবরের মতোই নিজেদের মতামত জানিয়েছিল টুডেজ চাণক্য, অ্যাক্সিস মাই ইন্ডিয়া, সি ভোটার এবং এসি নিয়েলসেন। ইন্ডিয়া টুডে-র লাইভে অ্যাক্সিস মাই ইন্ডিয়ার তরফে নিজের মতামত জানিয়েছিলেন প্রদীপ।

দেশ জুড়ে প্রায় আট লক্ষ ভোটারের উপর সমীক্ষা চালিয়ে অ্যাক্সিস মাই ইন্ডিয়া দাবি করেছিল, উনিশের লোকসভা ভোটে এনডিএ পেতে পারে ৩৩৯ থেকে ৩৬৫টি আসন। আর বাংলায় বিজেপি পেতে পারে ১৯ থেকে ২৩টি আসন। তৃণমূল পেতে পারে ১৯ থেকে ২২টি আসন। বুথ ফেরত সমীক্ষার ফল সব সময়েই যে ত্রুটিমুক্ত হয় তা নয়, তবে ২০১৩ থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত যতগুলি নির্বাচনের পূর্বানুমান দিয়েছিল অ্যাক্সিস মাই ইন্ডিয়া, তার ৯০ শতাংশই মিলে গিয়েছিল প্রায় হুবহু। কাজেই বুথ ফেরত সমীক্ষার ফলাফল নিয়ে প্রথম থেকেই চর্চার কেন্দ্রে ছিল এই এজেন্সি। আর দক্ষ সেফলোজিস্ট হিসেবে আলোচনার মাঝে ছিলেন প্রদীপ গুপ্তও।

‘‘অনেক সমালোচনা সহ্য করতে হয়েছে। আমি গর্বিত যে আমার টিম খুব ভালো কাজ করেছে। গত ৪০ দিন ধরে প্রায় প্রত্যেকটি লোকসভা ও বিধানসভা আসনে ঘুরে ঘুরে সমীক্ষা চালিয়েছে আমার টিমের সদস্যরা। কী ভাবে এবং কী প্রশ্ন করতে হবে তার সঠিক প্রশিক্ষণ তাঁদের ছিল। আমার ৫০০ জন ফিল্ড মেম্বারকে ধন্যবাদ,’’ চোখের জল মুছে বলেছেন সেফলোজিস্ট প্রদীপ গুপ্ত। জানিয়েছেন, নিজের এজেন্সির উপর বিশ্বাস রেখেছেন সবসময়, আত্মবিশ্বাস ধরে রেখেছিলেন শক্ত হাতে, তাই সাফল্য এসেছে এমন বিরাট আকার নিয়ে।

প্রদীপের প্রশংসায় পঞ্চমুখ শুধু ভিউয়াররা নন, সঞ্চালক রাহুল কানওয়ালও। বলেছেন, ‘‘সমীক্ষার পূর্বানুমান প্রকাশিত হওয়ার পর থেকেই লাগাতার ট্রোলড হয়েছে আমাদের টিভি চ্যানেল। টাকা খেয়েছি, রাজনৈতিক দলের দালাল ইত্যাদি নানা কটূক্তি ভেসে এসেছে ভিউয়ারদের থেকে। তবে শেষে আমজনতার বিশ্বাস জিততে পেরে আমরা গর্বিত। সেই জন্য অ্যাক্সিস মাই ইন্ডিয়ার সব সদস্য এবং অবশ্যই সেফোলজিস্ট প্রদীপ গুপ্তকে ধন্যবাদ ও অভিনন্দন।’’

আরও পড়ুন:

বুথ ফেরত সমীক্ষাকে আর ভাঁওতা বলা যাবে কি?

Comments are closed.