দৈনিক সংক্রমণ এবং মৃতের সংখ্যায় রেকর্ড পতন ভারতে, কমল অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যাও

১,৫০৭

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

দ্য ওয়াল ব্যুরো: ভারতে দৈনিক সংক্রমণ একধাক্কায় কমেছে অনেকটাই। সেই সঙ্গে কমেছে অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যাও। আর পাল্লা দিয়ে বেড়েছে সুস্থতার সংখ্যা। সব মিলিয়ে আশা জাগাচ্ছে ভারতের কোভিড পরিসংখ্যান। ভারতে এখন অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ৬,৫৩,৭১৭। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ৯,৩৯,৩০৯ জনের কোভিড টেস্ট করা হয়েছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪৫,১৪৮ জন। দেশে এখন আক্রান্তের সংখ্যা মোট ৭৯,০৯,৯৫৯। দেশে এ যাবৎ কোভিড সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ১,১৯,০১৪ জনের। গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে কোভিড সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ৪৮০ জনের। দৈনিক মৃতের সংখ্যাও একলাফে কমেছে অনেকটাই। আর এখনও পর্যন্ত দেশে কোভিড সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়েছেন ৭১,৩৭,২২৮ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে সুস্থতার সংখ্যা ৫৯,১০৫ জন।

ভারতের কোভিড পরিসংখ্যানের শীর্ষে রয়েছে মহারাষ্ট্র। দেশে কোভিড সংক্রমণের প্রাথমিক পর্যায় থেকেই মহারাষ্ট্রে করোনা আক্রান্ত এবং কোভিড সংক্রমণে মৃতের সংখ্যা সবচেয়ে বেশি। মুম্বই এবং পুণে এই দুই জায়গা হল মহারাষ্ট্রের অন্যতম করোনা হটস্পট। এরপর দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে অন্ধ্রপ্রদেশ। তৃতীয় স্থানে রয়েছে কর্নাটক। চতুর্থ স্থানে রয়েছে তামিলনাড়ু। পঞ্চম স্থানে রয়েছে উত্তরপ্রদেশ এবং ষষ্ঠ স্থানে রয়েছে রাজধানী শহর দিল্লি। মূলত এই ৬ রাজ্যেই দেশের মধ্যে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

মহারাষ্ট্রে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা মোট ১৬,৪৫,০২০। অন্ধ্রপ্রদেশে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৮,০৭,০২৩ জন। কর্নাটকে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৮,০২,৮১৭। তামিলনাড়ুতে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৭,০৯,০০৫ জন। উত্তরপ্রদেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৪,৭০,২৭০। দিল্লিতে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩,৫৬,৬৫৬। দেশের মোট আক্রান্তের প্রায় ৬১ শতাংশ (৬০.৫৭%) রয়েছে এই ৬ রাজ্যে।

বিশ্বের কোভিড পরিসংখ্যানে করোনা আক্রান্তের সংখ্যার নিরিখে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ভারত। প্রথম ও তৃতীয় স্থানে রয়েছে যথাক্রমে আমেরিকা ও ব্রাজিল। অন্যদিকে কোভিড সংক্রমণে মৃতের সংখ্যার নিরিখে বিশ্বের কোভিড পরিসংখ্যানে আমেরিকা এবং ব্রাজিলের পর তৃতীয় স্থানে রয়েছে ভারত। বিশ্বে এখন করোনা আক্রান্তের সংখ্যা মোট ৪,৩৩,৪৫,৯৪৪। কোভিড সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে মোট ১১,৫৯,০৯৩ জনের। আর সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৩,১৯,০৪,৮৯১ জন।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

You might also like

Comments are closed, but trackbacks and pingbacks are open.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More