টালা ব্রিজ বন্ধ হচ্ছে পুরোপুরি, কোন রুটে কী বদল, জেনে নিন

১৫

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

দ্য ওয়াল ব্যুরো: সম্পূর্ণরূপে বন্ধ হতে চলেছে টালা ব্রিজ। এতদিন কেবলমাত্র বাস এবং ভারী যানবাহন যেমন লরি, ট্রাক ইত্যাদি চলাচল বন্ধ ছিল টালা ব্রিজে। তবে নতুন বছরের শুরু থেকে সবরকম যান চলাচল বন্ধ হতে চলেছে টালা ব্রিজে। রাজ্য পরিবহণ দফতর সূত্রে খবর, আগামী ৪ জানুয়ারি থেকে টালা ব্রিজ ভাঙার কাজ শুরু হতে চলেছে।

পুরোপুরি ভাবে বন্ধ হওয়ার আগেই ট্রাফিক রুটে আমূল বদল আনতে চলেছে পাবলিক ভেহিকেল ডিপার্টমেন্ট। জানা গিয়েছে, ৩ জানুয়ারি রাত থেকে নতুন ট্রাফিক রুট চালু হবে। সূত্রের খবর, মোট ৪২টি বাসরুটে পরিবর্তন হতে চলেছে। জানা গিয়েছে, অ্যাসিস্টেন্ট ডিরেক্টর অমিতাভ ভট্টাচার্য, পিভিডি সেক্রেটারি নিমাই হালদার, সিপি আরএন ভাদুরি, শ্যামবাজারের ওসি রাজকুমার সিংহ এবং বেসরকারি যাত্রী পরিবহন মালিক সংগঠনের বৈঠকে সোমবার এই নতুন রুট নির্ধারিত হয়েছে। তবে রুট পরিবর্তন হলেও এখনই বাড়বে না বাসের ভাড়া।

কোন কোন রুটে কী কী পরিবর্তন-

  • ব্যারাকপুরের দিক থেকে কলকাতাগামী সব বাস বি টি রোড হয়ে চিড়িয়া মোড় থেকে দমদম সেভেন ট্যাঙ্ক-নর্দার্ন অ্যাভিনিউ হয়ে পাইকপাড়া মিল্ক কলোনির পর বেলগাছিয়া সেতু হয়ে শ্যামবাজারের রাস্তা ধরবে।
  • অন্যদিকে ব্যারাকপুরগামী বাস শ্যামবাজার থেকে ভূপেন বোস অ্যাভিনিউ ধরে রাজবল্লভ পাড়ার পর লক গেট ব্রিজ হয়ে চুনিবাবুর বাজার এবং চিড়িয়া মোড় হয়ে বি টি রোডে এসে উঠবে।
  • টালা ব্রিজে বাস চলাচলে নিষেধাজ্ঞার পর যে রুট ছিল সেই রুট অনেকাংশেই বজায় রাখা হয়েছে। তবে সম্পূর্ণভাবে টালা ব্রিজ বন্ধ হয়ে গেলে পাইকপাড়ার ভিতরের রাস্তায় গাড়ির চাপ ভীষণভাবে বেড়ে যাবে। সেই চাপ কমাতেই চিড়িয়া মোড় থেকে দমদমের রুটের এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।
  • চিৎপুর ব্রিজে কোনও ভাবেই গাড়ির চাপ বাড়ানো যাবে না। তাই ৪৩ ও ২৪২ রুটের বাস ও বেশ কিছু মিনিবাসকে চিৎপুর ব্রিজ ব্যবহার করতে দেওয়া হবে। তবে ৭৮, ৭৮/১, ২০১ ,২২২, ২৩০, ২৩৪, ৩৪বি, ৩৪সি, ৩০এ, ৩২এ, ও ছ’টি রুটের মিনিবাস শ্যামবাজার যাওয়ার ক্ষেত্রে পাইকপাড়া হয়ে বেলগাছিয়া ব্রিজ ধরবে। আর ডানলপের দিকে আসার সময় লক গেট ব্রিজ হয়ে চিড়িয়া মোড় পেরিয়ে গন্তব্যে যাবে।
  • হাওড়া থেকে যেসব গাড়ি টালা ব্রিজের দিকে যায় তারা সাধারণত বালি ব্রিজ ব্যবহার করে। তবে এবার থেকে এই রুটের বদলে তাদের হাওড়া থেকে দ্বিতীয় হুগলি সেতু হয়ে গন্তব্যে যেতে হবে। অন্যদিকে বিটি রোডেও লরি চলাচল নিয়ন্ত্রণ করা হবে। এই সমস্ত লরি বেলঘরিয়া এক্সপ্রেসওয়ের পর যশোর রোড ধরে যাবে।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

You might also like

Comments are closed, but trackbacks and pingbacks are open.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More