রবিবার, নভেম্বর ১৭

কানা মামা ড্রাগ বেচতে গিয়ে ধরা পড়ল জগন্নাথ ঘাটে, সঙ্গে আড়াইশ পুরিয়া হেরোইন

দ্য ওয়াল ব্যুরো: চোরাপথে কলকাতায় যে ড্রাগ বিক্রির কারবার চলছে তা লালবাজার সূত্রে এর আগেও বলা হয়েছে। ফলে বহুদিন ধরেই তক্কে তক্কে রয়েছে পুলিশ। ইদানীং গ্রেফতারও হয়েছে বেশ কিছু।

শুক্রবার বিকেলে আগে থেকে খবর পেয়ে পুলিশ তেমনই ধরে ফেলল কানামামাকে। তার আসল নাম শেখ হিলাল। স্ট্র্যান্ড রোডে ফুলের বাজারের কাছে একটা ঝুপড়িতে থাকে।

পরে পুলিশ জানিয়েছে, কানা মামার কাছে আড়াইশ-রও বেশি পুরিয়া হেরোইন পাওয়া গিয়েছে। শুক্রবার বিকেলে গ্রেফতার হওয়ার

আগে এক-দু পুরিয়া বিক্রি করে ফেলেছিল সে। তার কাছে কিছু নগদ টাকাও পাওয়া গিয়েছে।

কানামামার বিরুদ্ধে নার্কোটিক আইনের ২১ বি ধারায় মামলা করা হয়েছে। তবে পুলিশ জানিয়েছে, কানামামার গ্রেফতার ড্রাগ ব্যবসার সঙ্গে জড়িত আরও ‘বড় মামা’-দের ধরতে সাহায্য করবে বলেই মনে করা হচ্ছে। তাকে জেরা করা চলছে। তাকে কে ড্রাগ সাপ্লাই দিত বা কার কাছ থেকে পুরিয়া এনে সে বিক্রি করত তার খোঁজ চলছে।

পুলিশ সূত্রে খবর, কলকাতায় কলেজ পড়ুয়াদের একাংশ যে মাদকাসক্ত হয়ে পড়ছে তার প্রমাণ এর আগে মিলেছে। শেখ হিলালের মতো ড্রাগ পেডলাররাই তাদের হিরোইন-চরস সরবরাহ করে। তা ছাড়া ইদানীং কলকাতায় প্রাইভেট পার্টির চল হয়েছে। সেখানেও কোথাও কোথাও মাদক নেওয়া চলছে।

পড়ুন দ্য ওয়াল-এর পুজোসংখ্যার বিশেষ লেখা…

মায়ের সঙ্গে কথাবার্তা

Comments are closed.