শনিবার, মার্চ ২৩

ময়দানের পাশে নর্দমা থেকে উদ্ধার শিশুকন্যার দেহ

দ্য ওয়াল ব্যুরো: খোদ কলকাতায় নর্দমা থেকে উদ্ধার হলো বছর দু’য়েকের শিশুকন্যার দেহ।

শিশুটির মাথায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। প্রাথমিক তদন্তে তাদের অনুমান, সম্ভবত ভারী এবং ভোঁতা কোনও জিনিস দিয়ে ওই শিশুকন্যার মাথায় আঘাত করা হয়েছে। বাচ্চাটির দেহের অন্যান্য অংশেও আঘাতের চিহ্ন রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। তবে শিশুটি যৌন নির্যাতনের শিকার হয়েছে কিনা সে ব্যাপারে অবশ্য কিছু জানা যায়নি। পুলিশ জানিয়েছে, ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে শিশুটির দেহ। রিপোর্ট হাতে পেলে তারপরেই সামনে আসবে সব তথ্য।

ময়দান থানা সংলগ্ন যে মাঠে গঙ্গাসাগর যাত্রার আগে তীর্থযাত্রীরা থাকেন, সেই মাঠ থেকেই উদ্ধার হয়েছে এই শিশুর দেহ। বুধবার রাতে স্থানীয় কয়েকজন ফেরিওয়ালা প্রথমে দেহটি পড়ে থাকতে দেখেন। তড়িঘড়ি খবর দেওয়া হয় পুলিশকে। এরপর ঘটনাস্থলে আসে ময়দান থানার পুলিশ। উদ্ধার হয় ওই শিশুকন্যার দেহ।

পুলিশ জানিয়েছে, ময়দানের উল্টোদিকের ফুটপাথে বাবা-মায়ের সঙ্গে থাকত ওই শিশুটি। বুধবার সকাল থেকেই মেয়েকে খুঁজে পাচ্ছিলেন না ওই দম্পতি। পুলিশের অনুমান, সম্ভবত পারিবারিক বিবাদ কিংবা ব্যক্তিগত শত্রুতার জেরেই ওই শিশুকন্যাকে অপহরণ করে খুন করা হয়েছে। তবে কে বা কারা এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত সে ব্যাপারে এখনও কিছু জানতে পারেনি পুলিশ।

এই ঘটনায় ময়দান থানায় ইতিমধ্যেই রুজু করা হয়েছে একটি খুনের মামলা। তদন্তকারী অফিসারেরা জানিয়েছেন, সম্ভবত খুন করে তারপর নর্দমায় শিশুটির দেহ ফেলে রেখে গিয়েছে দুষ্কৃতীরা। বৃহস্পতিবার ঘটনাস্থলে যান কলকাতা পুলিশের হোমিসাইড শাখার গোয়েন্দারা। ঘটনাস্থল থেকে বিভিন্ন নমুনা সংগ্রহ করেন তাঁরা।

Shares

Comments are closed.