মঙ্গলবার, মার্চ ১৯

সেনাবাহিনীতে সমকামী যৌন সম্পর্ক চলবে না, আমরা রক্ষণশীল, বললেন সেনাপ্রধান

দ্য ওয়াল ব্যুরো: সমকামী যৌন সম্পর্ক রাখার অনুমতি সেনাবাহিনী দেবে না। রাওয়াত বলেন, সেনাবাহিনী রক্ষণশীল। সেখানে এ সব মেনে নেওয়া হয় না। সেনাপ্রধানকে সুপ্রিম কোর্টের রায় সম্পর্কে প্রশ্ন করা হয়েছিল একটি সাংবাদিক সম্মেলনে।

রাওয়াত বলেন, “আপ লোগো মে চলেগা তো চলনে দো। হামারা ইঁয়াহা নেহি চলেগা।” তিনি সাফ বলেন, সামরিক বাহিনীতে এলজিবিটি সম্পর্কের কোনও অনুমতি নেই। বাহিনীর নানা আইনে তার বিচার করা হবে। সমকামী যৌন সম্পর্ক অপরাধ নয় বলে সম্প্রতি সুপ্রিম কোর্ট যে রায় দিয়েছে, সেই প্রসঙ্গে কথাগুলি বলেন রাওয়াত। তাঁর কথায়, “আমরা দেশের আইনের উর্ধ্বে নয়। কিন্তু আপনারা যে সব সুযোগসুবিধে বা অধিকার উপভোগ করেন, আমরা সেগুলো করি না। কিছু জিনিস আমাদের জন্য আলাদা। তবে আমরা সুপ্রিম কোর্টের উর্ধ্বে নিশ্চয়ই নয়।” রাওয়াতের বক্তব্য, তেমন পরিস্থিতি হলে দেখা যাবে কী করা যায়। আগে সমাজে এই বিষয়ে গ্রহণযোগ্যতা আসুক। কুড়ি বছর পরে কী হবে, পরিস্থিতি বদলাবে কি না, তা এখন থেকে বলা সম্ভব নয়।

বিবাহবহির্ভূত সম্পর্ক ফৌজদারি অপরাধ নয় বলে আরও যে একটি ঐতিহাসিক রায় সুপ্রিম কোর্ট দিয়েছে, সে প্রসঙ্গে সেনাপ্রধান বলেন, সেনাবাহিনী একটি অতি রক্ষণশীল ফোর্স। সেখানে বিবাহবহির্ভূত সম্পর্ক রাখাকে মেনে নেওয়া হবে না। তাঁর কথায়, আমরা অতি আধুনিকও নই, পশ্চিমী মনোভাবাপন্নও নই।

সেনাবাহিনীতে গে সেক্স বা সমকামী সম্পর্ক নিয়ে ঢাকাচাপা দেওয়ার চল রয়েছে বিশ্বের সব বাহিনীতেই। আমেরিকায় যেমন আগে ছিল দেখেও না দেখার অলিখিত প্রথা। মানে এই ‘অস্বস্তিকর’ প্রশ্ন কোরো না, এ নিয়ে প্রকাশ্যে কিছু বলারও দরকার নেই। কিন্তু ২০১১ সালে ঢাকঢাক গুড়গুড় করার প্রয়োজনীয়তা শেষ হয়। কারণ, আমেরিকায় সমকামী সম্পর্ক নিয়ে নিষেধাজ্ঞা উঠে যায়। আর ব্রিটিনে তো বহু বছর আগেই এই নিষেধাজ্ঞা উঠে গেছে। ২০০০ সাল থেকে সমকামী সম্পর্কের ভিত্তিতে কোনও রকম বৈষম্য করা সেখানে বেআইনি।

Shares

Comments are closed.