১০হাজার কর্মী ছাঁটাইয়ের পথে এইচএসবিসি! দাবি রিপোর্টে

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

দ্য ওয়াল ব্যুরো: অক্টোবরের শেষেই ১০হাজার উচ্চপদস্থ কর্মীকে ছাঁটাই করতে পারে হংকং অ্যান্ড সাংহাই ব্যাঙ্ক কর্পোরেশন বা এইচএসবিসি? প্রতিবেদনে এমনই চাঞ্চল্যকর দাবি করেছে লন্ডনের ব্যবসায়িক সংবাদপত্র ‘দ্য ফাইনান্সিয়াল টাইমস।’ ব্যাঙ্কের উচ্চপদস্থ এক আধিকারিককে উদ্ধৃত করে তারা লিখেছে, চলতি মাসের শেষে ব্যাঙ্কের তরফে যখন ত্রৈমাসিক রিপোর্ট প্রকাশ করা হবে, তখনই এই ঘোষণা করা হতে পারে।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, উচ্চপদস্থ কর্মীদের উপরই প্রাথমিক ভাবে এই কোপ পড়তে চলেছে। অর্থাৎ আধিকারিক স্তরের ১০ হাজার জনকে এক ধাক্কায় ছেঁটে ফেলতে চাইছে কর্তৃপক্ষ। ‘দ্য ফাইনান্সিয়াল টাইমস’ তাদের প্রতিবেদনে লিখেছে, অন্তর্বর্তীকালীন সিইও নোয়েল কুইন ঘনিষ্ঠ মহলে এই ছাঁটাইয়ের কথা বলেছেন।

২০১৯-এর অগস্টে আচমকাই সেই সময়ের সিইও পদ থেকে জন ফ্লিন্টের বিদায় ঘোষণা করে এইচএসবিসি। চেয়ারম্যান মার্ক টাকার-এর সঙ্গে মতবিরোধের জেরেই তাঁকে সরতে হয় বলে ব্যাঙ্কিং মহলে খবর। আরও জানা যায়, চেয়ারম্যান মার্ক টাকার কর্মী ছাঁটাই করে খরচ কমানোর কথা বলেন। কিন্তু তাতে সহমত হননি জন ফ্লিন্ট। ফ্লিন্ট সরে যাওয়ার পর অন্তর্বর্তীকালীন সিইও করা হয় নোয়েল কুইনকে।

মার্কিন-চিন পারস্পরিক সম্পর্ক বহুদিন ধরেই তলানিতে। তার প্রভাব পড়ছে ব্যবসাতেও। মার্কিন অর্থনৈতিক সংস্থাগুলিতে যেমন মন্দার প্রভাব পড়েছে, তেমনই চিনের ক্ষেত্রেও। অর্থনীতিবিদদের মতে, ধাক্কা সামলাতেই আর কোনও পথ না পেয়ে এইচএসবিসি ছাঁটাইয়ের পথে হাঁটতে চলেছে।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

Comments are closed, but trackbacks and pingbacks are open.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More