বৃহস্পতিবার, অক্টোবর ১৭

ইতিহাস তৈরির থেকে কয়েক পা দূরে ভারত, অগস্টেই চাঁদের কক্ষপথে পৌঁছবে চন্দ্রযান-২

দ্য ওয়াল ব্যুরো: সবকিছু ঠিক থাকলে অগস্টের ২০-র মধ্যেই চাঁদের কক্ষপথে পৌঁছে যাবে চন্দ্রযান-২। বুধবার তেমনটাই জানিয়েছেন ইসরো-র আধিকারিকরা।

ইসরো-র তরফে জানানো হয়েছে, সফলভাবেই বুধবার বিকেলে পৃথিবীর চারপাশে থাকা প্রথম কক্ষপথ পেরিয়ে গিয়েছে চন্দ্রযান-২। এ বার পালা দ্বিতীয় কক্ষপথের। হিসেব অনুযায়ী ২৬ জুলাই রাত ১টা ৯মিনিট নাগাদ ২৩০x৪৫,১৬৩ কিলোমিটারের এই কক্ষপথ পেরনোর কথা চন্দ্রযান-২-এর। ৪৪ মিটার উচ্চতার প্রায় ১৬ তলা বাড়ির সমান চন্দ্রযানের বাহক রকেট ‘বাহুবলী’ ওরফে জিএসএলভি মার্ক-৩, যার ওজন ৬৪০ টন।

২২ জুলাই দুপুর ২টো ৪৩মিনিটে শ্রীহরিকোটার সতীশ ধবন মহাকাশ গবেষণা কেন্দ্রের দ্বিতীয় লঞ্চ প্যাড থেকে চাঁদের উদ্দেশে রওনা দিয়েছিল চন্দ্রযান-২। জিএসএলভি মার্ক-৩ রকেট ওরফে ‘বাহুবলী’র সাহায্যে চাঁদের দক্ষিণ মেরুতে পাড়ি দিয়েছে এই চন্দ্রযান-২। উৎক্ষেপণের দিনই ১৭০x৪৫,৪৭৫ কিলোমিটারের কক্ষপথে ঢুকে পড়েছিল এই জিওসিনক্রোনাস স্যাটেলাইট। সফলভাবেই সেই পথ পেরিয়েও যায় চন্দ্রযান-২। এ বার সময় মতো চাঁদের মাটিতে পৌঁছনোর পালা।

একটি অরবিটার, ল্যান্ডার ‘বিক্রম এবং রোভার ‘প্রজ্ঞান’——এই তিনের সমন্বয়েই তৈরি হয়েছে চন্দ্রযান-২। এই নিয়ে দ্বিতীয়বারের জন্য চাঁদের মাটিতে মহাকাশযান পাঠিয়েছে ভারত। অভিযান সফল হলে পূরণ হবে ১৩০ কোটি ভারতবাসীর স্বপ্ন। ইতিহাস গড়ে চাঁদের মাটিতে মহাকাশযান পাঠানো দেশগুলির মধ্যে ভারতের নাম পৌঁছে যাবে চতুর্থ স্থানে। হিসেব অনুযায়ী ২০ অগস্টেই চাঁদের কক্ষপথে পৌঁছে যাবে ৩.৮ টন ওজনের চন্দ্রযান-২। তারপর ৭ সেপ্টেম্বর চাঁদের মাটিতে ল্যান্ড করবে এই মহাকাশযান।

চাঁদের কক্ষপথ পৃথিবী পৃষ্ঠ থেকে ৩ লক্ষ ৮২ হাজার কিলোমিটার দূরে। কক্ষপথে প্রায় ১০০ কিলোমিটার উপরে থাকতেই চন্দ্রযানের পেট থেকে বেরিয়ে আসবে ল্যান্ডার ‘বিক্রম।’ নামবে চাঁদের দক্ষিণ মেরুতে (৭০ ডিগ্রি অক্ষাংশ) । ল্যান্ডার থেকে বের হবে ২৭ কেজি ওজনের ৬ চাকার রোভার। চাঁদের মাটিতে ঘুরে ঘুরে ছবি ও তথ্য পাঠাবে সে। ১৪ দিন ধরে চাঁদের আধ কিলোমিটার এলাকা জুড়ে সফর করবে এই রোভার। ঘুরে ফিরে সূর্যের আলো না পৌঁছনো চাঁদের অংশ থেকে প্রয়োজনীয় তথ্য গ্রাউন্ড স্টেশনে পাঠিয়ে দেবে চন্দ্রযানের রোভার।

Comments are closed.