নবান্নে ফের সংক্রামিত পুলিশকর্মী, দু’দিন বন্ধ গোটা ভবন, পিছিয়ে গেল মন্ত্রিসভার বৈঠক

সাংবাদিকদেরও প্রবেশ নিষেধ সেখানে। কারণ নবান্ন ভবন পুরোপুরি স্যানিটাইজ করা হবে। জরুরি ভিত্তিতে স্যানিটাইজ করার জন্যই এই সিদ্ধান্ত।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বুধবার কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার বৈঠক ছিল। তার দিন চারেক পরেই রবিবার জানা গেছে, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ্ করোনায় আক্রান্ত। জল্পনা ঘনিয়েছে, গোটা ক্যাবিনেটই কি তাহলে কোয়ারেন্টাইনে যাবে? নবান্নেও মন্ত্রিসভার বৈঠক হওয়ার কথা ছিল আজ, সোমবার। কিন্তু সে বৈঠক পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে শুক্রবার। কারণ সেই একই, করোনা-সতর্কতা। নবান্নে মোতায়েন এক পুলিশ কর্তার করোনা পজিটিভ রিপোর্ট এসেছে রবিবারই।

নবান্ন সূত্রের খবর, রবিবার পুলিশকর্মীর করোনা পজিটিভ আসার পরেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, আজ সোমবার ও কাল মঙ্গলবার পুরোপুরি বন্ধ থাকবে নবান্ন। এমনকি সাংবাদিকদেরও প্রবেশ নিষেধ সেখানে। কারণ নবান্ন ভবন পুরোপুরি স্যানিটাইজ করা হবে। জরুরি ভিত্তিতে স্যানিটাইজ করার জন্যই এই সিদ্ধান্ত।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আগেই বলেছিলেন যে সমস্ত সরকারি দফতর নিয়ম মেনে মাঝেমধ্যেই স্যানিটাইজ করা দরকার। সেইমতো নবান্নতেও প্রতি সপ্তাহে এক দিন করে, সাধারণত বৃহস্পতিবার করে স্যানিটাইজ করা হচ্ছিল।

কিন্তু তার পরেও বিপদ ক্রমেই বাড়ছে। নবান্ন সূত্রের খবর, এই প্রশাসনিক ভবনে এখনও পর্যন্ত ১০ জনেরও বেশি কোভিডে আক্রান্ত হয়েছেন। শেষ তথ্য অনুযায়ী নবান্নে মোতায়েন এক পুলিশ অফিসার ও তাঁর স্ত্রী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এই খবর পাওয়ার পরেই তড়িঘড়ি সোম ও মঙ্গলবার স্যানিটাইজ করা হবে বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

পাশাপাশি, আগামী বুধবার রাজ্যজুড়ে লকডাউন। সে দিনও নবান্নে পুরোপুরি উপস্থিতি থাকবে না অফিসারদের। এর পরে ফের বৃহস্পতিবার পুরোপুরি খুলবে নবান্ন। সরকারি দফতর বলতে অবশ্য শুধু নবান্ন নয়, কলকাতা পুরসভাও মাঝেমধ্যেই স্যানিটাইজ করা হচ্ছে। অন্যান্য সরকারি দফতরগুলিতেও চলছে পরিচ্ছন্নতা রক্ষা করার কাজ।

রবিবাক সন্ধে পর্যন্ত স্বাস্থ্য দফতরের তরফে প্রকাশিত বুলেটিন অনুযায়ী, রাজ্যে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৭৫ হাজার ৫১৬। একদিনে রাজ্যে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ২৭৩৯ জন। মারা গেছেন ৪৯ জন। শুধু শহর কলকাতা থেকেই আক্রান্ত ৭০৫, মৃত ২০। ফলে উদ্বেগ যে ক্রমেই বাড়ছে, তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।

এমন আবহেই খবর এসেছে দিল্লিতে করোনা সংক্রমণ নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ্। নিয়মানুযায়ী কারও কোভিড ধরা পরলে তাঁর কাছাকাছি সম্প্রতি যাঁরা এসেছেন তাঁদের প্রত্যেকের আইসোলেটেড থাকা বাধ্যতামূলক। তাঁদের পরীক্ষাও জরুরি বলে মত চিকিৎসক মহলের অনেকের। যাঁকে কনট্যাক্ট ট্রেসিং বলা হয়। অনেকের মতে, এই বিষয় কার্যকর হলে মন্ত্রিসভার অনেকেরই বা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের বেশ কিছু আমলা ও উচ্চপদস্থ আধিকারিকেরও আইসোলেটেড থাকার কথা।

সে বিষয়ে এখনও নিশ্চিত কোনও খবর পাওয়া যায়নি। তবে নবান্নে মোতায়েন পুলিশকর্মীর করোনা আক্রান্ত হওয়ার ঘটনাকে যে বেশ গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে, সে বিষয়ে কোনও সন্দেহ নেই।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

You might also like

Comments are closed, but trackbacks and pingbacks are open.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More