২০১৮ সালে প্রতিদিন আত্মঘাতী হয়েছেন ৩৫ জন বেকার ও ৩৬ জন স্বনিযুক্ত ব্যক্তি

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

দ্য ওয়াল ব্যুরো : কৃষকদের আত্মহত্যা নিয়ে গত এক দশকের বেশি সময় ধরে নানা তথ্য প্রকাশিত হয়েছে। কিন্তু ন্যাশনাল ক্রাইমস রেকর্ড ব্যুরোর তথ্যে জানা গেল, কৃষকদের চেয়েও এখন কর্মহীন ও স্বনিযুক্ত ব্যক্তিরা আত্মঘাতী হচ্ছেন বেশি সংখ্যায়। ২০১৮ সালে সারা দেশে প্রতিদিন গড়ে ৩৫ জন কর্মহীন ব্যক্তি আত্মহত্যা করেছেন। বেকার ও স্বনিযুক্ত ব্যক্তি মিলিয়ে ওই বছরে আত্মহত্যা হয়েছেন মোট ২৬ হাজার ৮৫ জন। ওই বছরে আত্মঘাতী কৃষকের সংখ্যা ছিল ১০ হাজার ৩৪৯। আত্মঘাতী বেকারের সংখ্যা ছিল ১২ হাজার ৩৯৬। আত্মঘাতী স্বনিযুক্ত ব্যক্তির সংখ্যা ছিল ১৩ হাজার ১৪৯।

২০১৮ সালে ভারতে মোট যত ব্যক্তি আত্মঘাতী হয়েছিলেন, তাঁদের মধ্যে স্বনিযুক্ত ব্যক্তিরা ৯.৮ শতাংশ। যে কৃষকদের নিজেদের জমি আছে, তাঁদের মধ্যে আত্মঘাতীর সংখ্যা ছিল ৫৭৬৩। তাঁদের মধ্যে পুরুষের সংখ্যা ৫৪৫৭। নারীর সংখ্যা ৩০৬। ভূমিহীন ক্ষেতমজুরদের মধ্যে আত্মঘাতী হয়েছেন ৪৫৮৬ জন। তাঁদের মধ্যে ৪০৭১ জন পুরুষ। ৫১৫ জন নারী।

২০১৮ সালে সব মিলিয়ে দেশে আত্মঘাতী হয়েছেন ১ লক্ষ ৩৪ হাজার ৫১৬ জন। ২০১৭ সালের তুলনায় ওই সংখ্যা ৩.৬ শতাংশ বেশি। ২০১৭-র তুলনায় ২০১৮ সালে আত্মঘাতীর সংখ্যা প্রতি ১ লক্ষ মানুষে বেড়েছে ০.৩ শতাংশ। ওই বছর যত মহিলা আত্মঘাতী হয়েছেন, তাঁদের সংখ্যা ৪২.৩৯১। তাঁদের মধ্যে গৃহবধূরা আছেন ৫৪.১ শতাংশ। আত্মঘাতী গৃহবধূর সংখ্যা মোট ২২, ৯৩৭ জন।

আত্মঘাতীদের মধ্যে সরকারি চাকুরের সংখ্যা ১৭০৭ জন। বেসরকারি চাকুরের সংখ্যা ৮২৪৬ জন। রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার কর্মী আছেন ২০২২ জন।

এদেশে সবচেয়ে বেশি মানুষ আত্মঘাতী হয়েছেন মহারাষ্ট্রে। তাঁদের সংখ্যা ১৭ হাজার ৯৭২। তার পরেই আছে তামিলনাড়ু (১৩,৮৯৬)। পশ্চিমবঙ্গ আছে তৃতীয় স্থানে। ২০১৮ সালে এই রাজ্যে আত্মহত্যা করেছেন ১৩ হাজার ২৫৫ জন।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

Comments are closed, but trackbacks and pingbacks are open.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More