মঙ্গলবার, অক্টোবর ১৫

মাওবাদী গুলিতে নিহত দুই পুলিশকর্মী, উৎসবের মরসুমে বিষাদের ছায়া ঝাড়খণ্ডে

দ্য ওয়াল ব্যুরো: দেশের একটা বড় অংশের মানুষ যখন উৎসবের আনন্দে সামিল, তখন সেই মানুষদের নিরাপত্তার স্বার্থেই গুলিতে ঝাঁঝরা হয়ে শহিদ হয়ে গেলেন দুই পুলিশকর্মী। শুক্রবার ভোররাতে ঝাড়খণ্ডের রাঁচিতে মাওবাদীদের সঙ্গে এনকাউন্টারে নিহত হন দুই পুলিশকর্মী। পুলিশ জানিয়েছে, এখনও জঙ্গলে লুকিয়ে রয়েছে মাওবাদীরা। তাদের সন্ধানে চলছে তল্লাশি।

ঝাড়খণ্ড পুলিশের অ্যাডিশনাল ডিরেক্টর জেনারেল মুরারিলাল মীনা জানান, গভীর রাতে খবর আসে বুন্দু ও নামকুম অঞ্চলের দশম ফলস এলাকায় কয়েক জন মাওবাদী লুকিয়ে রয়েছে। বড়সড় কোনও হামলার ছক কষেছে তারা। এই খবর পাওয়ার পরেই শুক্রবার ভোর চারটে থেকে গোটা এলাকায় চিরুনি তল্লাশি চালাতে শুরু করে পুলিশ।

সূত্রের খবর, সে সময়ে আচমকাই পুলিশবাহিনীকে লক্ষ করে গুলি চালাতে শুরু করে জঙ্গলে লুকিয়ে থাকা মাওবাদীরা। পাল্টা গুলি চালাতে শুরু করেন পুলিশকর্মীরাও। গুলির লড়াইয়ে লুটিয়ে পড়ে যান পুলিশের দুই কর্মী। সঙ্গে সঙ্গে তাঁদের হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। এক জন পুলিশকর্মীকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকেরা। খানিক পরে মৃত্যু হয় আর এক জনেরও।

উল্টো দিকে, পুলিশের গুলিতেও কয়েক জন মাওবাদী খতম হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। তবে ঘটনাস্থল থেকে এখনও পর্যন্ত কোনও মৃতদেহ উদ্ধার করা যায়নি। দেহগুলি লুকিয়ে ফেলা হয়ে থাকতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। এখনও পর্যন্ত কোনও মাওবাদীকে গ্রেফতারও করা যায়নি।

ঘটনার তীব্র নিন্দা করেন ঝাড়খণ্ডের মুখ্যমন্ত্রী রঘুবর দাস। তিনি বলেন, “এনকাউন্টার চালাতে গিয়ে দুই জাগুয়ার জওয়ানের মৃত্যু হয়েছে। তাঁদের এই বলিদানকে আমি স্যালুট জানাই। ঝাড়খণ্ডে মাওবাদ নিকেশ করতে হবে।”

Comments are closed.