এমএ, বিএড, এলএলবি একসঙ্গে করেছি, ডাক্তারদের উৎসাহ মমতার

0

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

দ্য ওয়াল ব্যুরো: চিকিৎসা পরিষেবা দেওয়ার পাশাপাশি ডাক্তাররা কেন পড়াশুনা চালিয়ে যেতে পারবেন না তা নিয়ে বৃহস্পতিবার প্রশ্ন তুললেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এ দিন দুপুরে হেল্থ ইউনিভার্সিটির সমাবর্তন অনুষ্ঠানের বক্তৃতায় মুখ্যমন্ত্রী বলেন,“আমি এক সময়ে এমএ, বিএড আর এলএলবি একসঙ্গে পড়েছি। তখন ওরকম নিয়ম ছিল। কিন্তু এখন আমাদের রাজ্যে অনেক ডাক্তার এমডি-এমএস পড়তে চান কিন্তু সুযোগ পান না।“ তাঁর কথায়, “এমন হওয়া উচিত নয়। তাঁরা যাতে চিকিৎসা ও স্টাডি এক সঙ্গে করতে পারেন তার জন্য একটা সিস্টেম করা উচিত।“

এরই পাশাপাশি স্বাস্থ্য ক্ষেত্রে রাজ্য সরকারের সাফল্যের হিসাব তুলে ধরেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি জানান,”গত সাত বছরে রাজ্যে ৪২টি মাল্টি স্পেশ্যালিটি হাসপাতাল হয়েছে। ফেয়ার প্রাইস মেডিসিন শপ হয়েছে একশোর বেশি। রাজ্যের ১৪০০ হাসপাতালে বছরে ৯ কোটি রোগীর চিকিৎসা হয়। ডাক্তারি পড়ার আসন বাড়ানো হয়েছে। আরও বাড়ানো হচ্ছে।“ তবে ফ্রি ট্রিটমেন্ট ইত্যাদি ব্যবস্থার যাতে অপব্যবহার না হয় সে জন্য সতর্ক করেন তিনি।

বাঙুর হাসপাতালে কয়েকদিন আগের ঘটনা নিয়েও উদ্বেগ প্রকাশ করেন মুখ্যমন্ত্রী। তাঁর কথায়, যা আছে জীবনে যথেষ্ট। সবচেয়ে বেস্ট হচ্ছে ভালোভাবে থাকব।

তরুণ চিকিৎসকদের হার্ট, কিডনি, সুগারের মতো রোগ নিয়ে গবেষণায় উৎসাহ দেন মমতা। সেই প্রসঙ্গেই বলেন, রিসার্চে বেশি গুরুত্ব দেওয়ার কথা বলেন তিনি। জানিয়ে দেন, ডাক্তাররা চিকিৎসা ও গবেষণার কাজ যাতে একই সঙ্গে করতে পারে সে জন্য তিনি চেষ্টা করবেন।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

Leave A Reply

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More