Latest News

কাঁচা ফল ও শাকসবজি ভাল রাখে মানসিক স্বাস্থ্যও, এমনটাই বলছে গবেষণা

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বিশ্বজুড়ে মানুষের মানসিক স্বাস্থ্য নিয়ে উদ্বেগ তৈরি হয়েছে। ‘মেন্টাল হেলথ’-এর খেয়াল রাখা যে কতটা জরুরি তা বুঝতে পেরেছেন গবেষকরা। বর্তমান সময়ে হেকটিক জীবন, ক্রমবর্ধমান কাজের চাপ, প্রতিযোগিতা, বাচ্চা থেকে বড় সকলেরই মানসিক স্বাস্থ্যের অবনতি ঘটাচ্ছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা পরিসংখ্যান অনুযায়ী ২০১৭ পর্যন্ত মানসিক স্বাস্থ্যের অবনতির হার বেড়েছে গত দশকের থেকে আরও ১৩ শতাংশ। তাদের একটি প্রতিবেদনে জানানো হয়, “ভারতে প্রতিবছর ১০০০০ জন মানুষের মধ্যে ২৪৪৩ জন মানসিক স্বাস্থ্য নিয়ে সমস্যার সম্মুখীন হন, কিন্তু তাঁদের মানিয়ে নিতে হয়! অনেকে আত্মহত্যার পথ বেছে নেন এই যন্ত্রণা সহ্য করতে না পেরে, পরিসংখ্যানটা ১০০০০০ জনের মধ্যে ২১.১ জন। ২০১২-২০৩০ এর মধ্যে মানসিক স্বাস্থ্যের অবনতির কারণে অর্থনৈতিক ক্ষতির আশঙ্কা রয়েছে, আনুমানিক ১.০৩ ট্রিলিয়ন মার্কিন ডলার।”

তাই বিশেষজ্ঞরা সবকিছুর সার্বিক উন্নয়নের জন্য ‘মেন্টাল হেলথ’-এর ওপরে বেশি জোর দিচ্ছেন। হাসিখুশি থাকলে, পজিটিভ থাকলে, ভাল কিছু চিন্ত করলে আপনার মানসিক স্বাস্থ্যও অনেকটা ভাল থাকে। ঠিকমতো খাওয়া দাওয়া করা, একটা ঠিকঠাক স্বাস্থ্যকর ডায়েটও আপনার মানসিক স্বাস্থ্যকে ভাল রাখার পেছনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। যা কিছু খাওয়া হয় তা শরীরের সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ রাখে তাই পুষ্টিকর ভাল খাবার খাওয়া দরকার। যেমন, অ্যাডাপ্টোজেন রয়েছে অশ্বগন্ধা, ষষ্ঠিমধুতে আবার অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট রয়েছে গ্রিন-টি তে। এগুলো মন ও নার্ভগুলোকে শিথিল করতে সহায়তা করে, চাপ ও উদ্বেগ কমাতেও সাহায্য করে।

সম্প্রতি একটি গবেষণায় দেখা গেছে যে কাঁচা ফল ও শাকসবজি, ভাল ঘুম ও নিয়মিত যোগব্যায়াম ‘মেন্টাল হেলথ’কে ভাল রাখার তিনটি প্রধান স্তম্ভ। সাইকোলজির একটি জার্নাল ফ্রন্টিয়ার্সে প্রকাশিত হয় যে, “ভাল করে ঘুমোনো, যোগব্যায়াম করা ও কাঁচা ফল ও শাকসবজি খেলে তরুণ ও বয়স্ক সকলেরই মানসিক স্বাস্থ্য ভাল থাকবে।”

মানসিক স্বাস্থ্য ভাল রাখা সবার আগে দরকার। তাই প্রতিদিনের ডায়েটে কাঁচা ফল ও সবজি রাখুন, বানিয়ে ফেলুন মজাদার ও স্বাস্থ্যকর স্যালাড।

সুপারফুড স্যালাড

নামেই বলা হয়েছে সুপারফুড! এই স্যালাডের মধ্যে বেরি, কালে, ছোলা রয়েছে যা ভীষণই পুষ্টিকর। অনেকক্ষণ পর্যন্ত পেট ভর্তিও রাখে। তাহলে এই স্যালাডকে আপনি আপনার ডায়েট চার্টে যোগ করতেই পারেন।

ছোলা ও পালং শাক

পালং শাকের স্যালাড খুবই স্বাস্থ্যকর। পুদিনা পাতা, ছোলা দিয়ে তৈরি এই স্যালাড আপনি যে কোনও সময় খেতে পারেন। এটা যেমন পেট ভরাবে তেমনই মানসিক স্বাস্থ্যকেও ভাল রাখাতে সহায়তা করবে।

গাজর স্যালাড

এই স্যালাড বানানোর জন্য প্রয়োজন গাজর, সবুজ পেঁপে, শশা আর সাজানোর জন্য দরকার মধু-সয়া। গাজরের স্যালাড দেখতেও ভীষণই সুন্দর ও রঙিন হয়।

ডালিম ও কিউই স্যালাড

ডালিম, কিউই আর কমলালেবু দিয়ে বানিয়ে ফেলতে পারেন এই স্যালাড। এই স্যালাড খেতেও যেমন চমৎকার, তেমনই এর মধ্যে রয়েছে প্রচুর ভিটামিন যা শরীরের জন্য খুবই ভাল।

You might also like