Latest News

রঙিন দীপাবলির সাজেও চাই ঝলমলে লুক

আলোর উৎসবে সাজপোশাকে আর মেকআপেও চাই উজ্জ্বলতার ছোঁয়া। বললেন, মেকআপ আর্টিস্ট কৌশিক ও স্টাইলিং এক্সপার্ট রজত। তাঁদের সঙ্গে কথা বলে পরামর্শে  সোমা লাহিড়ীদীপাবলি উৎসব শুরু হয় ধনতেরস থেকে, আর শেষ হয় ভাইফোঁটায়। এই সময় বাতাসে হিমের পরশ জানান দেয় শীত আসছে। শীতের আগমন মানেই পার্টি টাইম অন। সত্যি বলতে কি, দেওয়ালি থেকেই কিন্তু পার্টি শুরু। তাই এই আলোর উৎসবে সন্ধের সাজে তো বটেই, দিনের সাজেও চাই ব্রাইট কালার শেডস।

কেমন হবে দীপাবলির পোশাক?
পুজোর সময় শাড়ি তো প্রায় রোজই পরেছেন, দীপাবলিতে লেহেঙ্গা চোলি, লেহেঙ্গা -স্কার্ট টপ বা আনারকলি চুড়িদার পরতে পারেন। এখন যেহেতু কোভিড কাল, তাই ডিজাইনাররাও খুব হেভি কাজ করছেন না লেহেঙ্গায় বা শাড়িতে। হালকা কারুকাজ করে ঝলমলে লুক দিচ্ছেন বেশিরভাগ ডিজাইনার। সন্ধের পার্টির জন্য ব্ল্যাক, রেড, মেরুন, মিডনাইট ব্লু , বটলগ্রিনের সঙ্গে বেজ বা অফ হোয়াইট কম্বিনেশন বাছতে পারেন। আর সকালের সাজে লেমন ইয়েলো, গোল্ডেন ইয়েলো, পিচ পিংক, টারকোয়াইজ ব্লুর সঙ্গে সাদা, অফ হোয়াইট বা লাইট পিংকের মিলমিশ খুব ভালো লাগে।মডেল সুস্মিতা পরেছেন ডিজাইনার সোমা ভট্টাচার্যের দেওয়ালি কালেকশন। দিনের সাজের জন্য লেমন -হোয়াইট লেসের লেহেঙ্গা বানিয়েছেন ডিজাইনার। আর নাইট পার্টির জন্য রেড অরেঞ্জ অরগ্যঞ্জার সঙ্গে গোল্ডেন জরির কারুকাজ।যাঁরা শাড়ি পরতে চান তাঁরা খুব ভারী সিল্ক না পরে হালকা চান্দেরি বা অরগ্যাঞ্জা বাছতে পারেন। কটন মিক্সড তসর, তসর হ্যান্ডলুম, মসলিন ঢাকাই, লিনেন কটনে জরির কাজ করা শাড়িও আপনার দীপাবলির সাজে আনবে রঙের জোয়ার। উজ্জ্বল রঙের মেখলাও কিন্তু দীপাবলিতে আপনাকে অন্যরকম লুক দেবে।ডিজাইনার জয়িতা মুখোপাধ্যায়ের তৈরি মেখলায় অভিনেত্রী সোহিনী যেন দেওয়ালি দিভা। আর ডিজাইনার সুপ্রিয়া গঙ্গোপাধ্যায়ের দীপাবলি কালেকশন থেকে ঝলমলে হলুদ-রানি শাড়িটা বেছেছে সোহিনী ভাইফোঁটার দিনের জন্য।

কেমন হবে মেকআপ?
দীপাবলির শাড়ি বা পোশাকের কালার প্যালেট যেহেতু ব্রাইট তাই কালার কসমেটিক্সও ব্রাইট শেডের বাছতে হবে।
• প্রথমেই লিপকালারের প্রসঙ্গে বলি, সন্ধের সাজে শাড়ি বা পোশাকের সঙ্গে ম্যাচ করে ডার্ক রেড, মেরুন, ব্রাউন, ওয়াইন কালার লাগাতে পারেন। দিনের সাজে পিচ, পিঙ্ক, হালকা ব্রাউন, হালকা মভিশ পিঙ্ক, বেজ পোশাকের সঙ্গে ম্যাচ করে লাগানো যেতে পারে। ম্যাট নয়, গ্লসি লিপস্টিক ভালো লাগবে এই সময়। নাইট পার্টি হলে লিপে গ্লিটারি এফেক্ট দিতে পারেন।• চোখের মেকআপও একটু ইলাবরেট করা যেতে পারে। ব্ল্যাক আই লাইনারের তুলির টানে বা কাজলের একটু চওড়া রেখায় চোখে আনুন উজ্জ্বলতা। আইশ্যাডোতে মেটালিক এফেক্ট রাখতে পারেন। গোল্ড, কপার, কপারিশ গোল্ড ব্যবহার করলে একটা মোহময় লুক আসবে দুচোখে। সকালের দিকে আইশ্যডোর বদলে কালার্ড আই পেন্সিল ব্যবহার করুন। একেবারে অন্যরকম দেখাবে।
• রাতের সাজে স্মোকি লুক মানায় যাঁদের তাঁরা চারকোল গ্রে শ্যাডো আর পেন্সিল লাগাতে পারেন। স্মোকি আইজ করলে লিপকালার অবশ্যই ডিপ রেড বা ওয়াইন কালার হলে ভালো হয়। আইল্যাশ হালকা হলে ভল্যুম মাসকারা আপনার চোখের পাতায় আনবে হিল্লোল।•বেস মেকআপ স্কিনের সঙ্গে টোন অন টোন হলে খুব ভালো দেখায়। ম্যাট ফাউন্ডেশন ব্যবহার না করে এইসময় একটু গ্লসির দিকে যেতে পারেন।
গ্লিটার বা শিমারি এফেক্ট দিলেও বেশ লাগে। পোশাক বা শাড়ির সঙ্গে মিলিয়ে ব্রোঞ্জ, কপার বা গোল্ড লুক বেছে নেবেন।
• ব্লাশঅনের ক্ষেত্রে পিংক, পিচ, কোরাল সব বয়েসের সব স্কিন টোনে মানায়।
• মেকআপের আগে অবশ্যই মেকআপ প্রাইমার লাগাবেন। এতে মেকআপ লং লাস্ট করবে।

দীপাবলির হেয়ার স্টাইল কেমন?
• কালীপুজো মানেই প্রদীপ জ্বালানো, বাজি ফাটানো (যদিও এবার নিষেধ আছে), মোমের আলোতে নিজেকে মেলে ধরা। তাই খোলা চুলে না থাকাই ভালো। টপ নট, ট্যুইস্টেড বান বা ঘাড়ের কাছে হাত-খোঁপা, যাকে যেমন মানায় সে তেমন করবেন। পুজোবাড়িতে নেমন্তন্ন থাকলে খোঁপাতে ফুল লাগাতে পারেন।
• কেউ খোলা চুলে থাকতে চাইলে সামনে থেকে চুল তুলে ক্লিপিং করে পেছনে খোলা রাখতে পারেন। এখন অনেকরকম হেয়ার অ্যাক্সেসরিজ পাওয়া যায়। তাও লাগাতে পারেন পছন্দ মতো।

You might also like