Latest News

Saree Fashion: নববর্ষে শাড়ি মাস্ট! মিলবে ট্র্যাডিশনাল থেকে হালফ্যাশনের শাড়ি? রইল খোঁজ

চৈতালি দত্ত

বাংলা নববর্ষের কাউন্টডাউন শুরু হয়ে গেছে। আর মাত্র কয়েকটা দিন বাকি। ভাবছেন মনোলোভা সামার কালেকশন কোথায় মিলবে? অনায়াসে আপনার শপিং ডেস্টিনেশন এবার হতে পারে প্রিয়গোপাল বিষয়ী। এখানে রয়েছে সামার কালেকশনের নজরকাড়া বিপুল সম্ভার। সবচেয়ে বড় ব্যাপার, এখানে ট্রাডিশনাল থেকে হালফ্যাশনের শাড়ির রয়েছে অফুরন্ত ভান্ডার।

তাঁতের শাড়ির দাম শুরু হয় ৫০০ টাকা থেকে। ফুলিয়া কটন টাঙ্গাইল শাড়ির দাম ৭০০ টাকা থেকে শুরু হয়। তবে আঁচলে কারুকাজ থাকলে ১৪০০-১৫০০ টাকা থেকে পাওয়া যায়। কটন জামদানি শাড়ি ৭০০ টাকা থেকে মিলবে। ১৮০০ টাকার থেকে অলওভার সিল্ক ঢাকাই শাড়ির দাম শুরু হয়। সান্ধ্য অনুষ্ঠানে পরার জন্য রয়েছে মসলিন ঢাকাই জামদানি শাড়ি, দাম ২৪০০ টাকা থেকে শুরু। ২৩৬০ টাকা থেকে ব্রোকেড জামদানি শাড়ি পাওয়া গেলেও এমব্রয়ডারি করা মসলিন শাড়ির দাম শুরু হয় ৩৯০০ টাকা থেকে। বাংলাদেশি সিল্ক ঢাকাই শাড়ির দাম ৬ হাজার টাকা থেকে শুরু, বাংলাদেশি পিওর কটন শাড়ির আবার ৮০০-৯০০ টাকা থেকেই পাওয়া যাচ্ছে।

৬০০ টাকা দামের হ্যান্ডলুম শাড়ি মিললেও কাজ অনুযায়ী এর দাম নির্ভর করে। হ্যান্ডলুমের মধ্যেও রয়েছে প্রচুর ভ্যারাইটি। পিওর কটন (খাদি হ্যান্ডলুম), সিল্ক হ্যান্ডলুম ইত্যাদি। ২৬২৫ টাকা থেকে এঁদের নিজস্ব আইটেম সিল্ক হ্যান্ডলুম শাড়ি রয়েছে, যা বাজার চলতি শাড়ির থেকে স্বতন্ত্র।

মহিলাদের তসর শাড়ির প্রতি অমোঘ আকর্ষণ রয়েছে। যাঁরা নিজেদের তসর শাড়িতে সাজাতে চান তাঁরা এখানে ঢুঁ মারতে পারেন। এখানে রয়েছে তাঁত তসর, তসর গরদ, লিনেন তসর, সিল্ক তসর ইত্যাদি। ১৫০০ টাকা থেকে তাঁত তসর শাড়ির দাম শুরু।

মটকা শাড়ির কালার ও ডিজাইনেও রয়েছে প্রচুর বৈচিত্র। বর্ডার দেওয়া পিওর মটকা শাড়ির দাম শুরু হয় ৩৪০০ টাকা থেকে। ৩৮৯০ টাকা থেকে মটকা মসলিন শাড়ি পাওয়া গেলেও সিলভার কালারের টেম্পল বর্ডার ও আঁচলের মটকা শাড়ির দাম শুরু হয় ৭-৮ হাজার টাকা থেকে। সম্পূর্ণ হাতে বোনা কাট স্যাটেল পিওর মটকা শাড়ির দাম ৯-৯.৫ হাজার টাকা থেকে শুরু হয়। এই ধরনের শাড়ির বর্ডার এবং জমি আলাদা করে হাতে বোনা হয়। অপূর্ব দেখতে। বাংলাদেশি পিওর কটন কটকি এবং তার সঙ্গে জুটের কাজ হলে শাড়ির দাম ১৬০০ টাকার থেকে শুরু।

তবে কোনও উৎসবে পরার জন্য গরদের শাড়ি আইডিয়াল। বর্ডার দেওয়া জমি প্লেন হলে এই ধরনের শাড়ির দাম শুরু ২৫০০ টাকার থেকে। তবে জমিতে বুটি থাকলে ৩৫০০ টাকা থেকে এই শাড়ি মিলবে। এখন কালারিং গরদ শাড়ি বাজারে এসে গেছে। এখানে তাও মজুত। বেনারসি লিনেন সিল্ক শাড়ি এককথায় অনবদ্য। বুটি বিহীন এবং বুটি সমেত দু’রকমই পাওয়া যায়। এই শাড়ির মধ্যে একটা ‘গর্জিয়াস’ লুক আছে। ২১৫০ টাকার থেকে (বুটি ছাড়া) দাম শুরু।

এছাড়াও এখানে রয়েছে প্যাস্টেল শেডের প্রিন্টেড জমির সঙ্গে চিকনকারির বর্ডারের অর্গেঞ্জা শাড়ি যা এঁদের এক্সক্লুসিভ আইটেম। ২৮০০ টাকা থেকে দাম শুরু। তবে অর্গেঞ্জায় যদি অল ওভার জমি উইভ করা থাকে সেক্ষেত্রে দাম শুরু হয় ২৬১০ টাকা থেকে। অর্গেঞ্জার ওপর অল ওভার ওয়ার্ক এবং এমব্রয়ডারি বর্ডার হলে ৮৫০০ টাকা থেকে দাম শুরু হয়। ৩৫০০ টাকা থেকে শিফন বেনারসি মিলবে।

এছাড়াও এঁদের ফ্যান্সি আইটেমের বিরাট বিভাগ রয়েছে, যেখানে রকমারি শাড়ির হদিশ মিলবে। শুধু নিজে পরার ক্ষেত্রে নয়, উপহার দেওয়ার জন্যও আদর্শ। এখানে মিলবে কটন ইক্কত, কটকি, গাদোয়াল ইত্যাদি।দাম ৬০০-২ হাজার টাকা।

তবে যাঁরা কম রেঞ্জের ডিজাইনার শাড়ির সন্ধানে রয়েছেন, তাঁদেরও হতাশ হওয়ার কারণ নেই। এখানে রয়েছে ডিজাইনার শিফন শাড়ি, ১২০০ টাকা থেকে দাম শুরু। ১৫০০ টাকা থেকে নেটের শাড়িও মিলবে। এই গরমে প্রতিদিন ব্যবহারের জন্য রয়েছে ছাপা প্রিন্টের শাড়ি, ৩০০ টাকা থেকে দাম শুরু। এছাড়াও কটন বাটিক, অ্যাপ্লিক, আজরক, হ্যান্ডলুম ব্লক প্রিন্ট, মলমল শাড়িও পাওয়া যায়।

শাড়ি ছাড়াও লেহেঙ্গার বিরাট রেঞ্জ রয়েছে প্রিয়গোপালে। লেহেঙ্গা তো এখন ফ্যাশনেও ইন্। উৎসব, অনুষ্ঠান থেকে শুরু করে বিয়ের কনেদেরও রিসেপশনে পরার জন্য ফার্স্ট চয়েস এখন লেহেঙ্গা। এখানে বাজেটের মধ্যেই পেয়ে যাবেন মনের মতো লেহেঙ্গা। দাম ২০০০-৪০ হাজার টাকা। বেনারসি, ভেলভেট, নেট ইত্যাদি ফ্যাব্রিকের রয়েছে ওয়েডিং লেহেঙ্গা। লেহেঙ্গা এখানে কাস্টমাইজড করা হলেও ওপরের টপ ব্লাউজ পিস হিসেবে পাওয়া যায়। পছন্দের দর্জি দিয়ে তৈরি করিয়ে নেওয়া যাবে। এখানে অবশ্য আলাদা করে কোনও টেলারিং বিভাগ নেই।

তবে রয়েছে ডিজাইনার রেডিমেড এবং রেডি টু স্টিচ ব্লাউজ। দাম ৫০০-১২০০ টাকা। ৭০০ টাকা থেকে পাওয়া যায় রেডিমেড কুর্তি। এল, এক্সএল, ডাবল এক্সএল– এই তিনটি সাইজে মিলবে। ৪৮০ টাকা থেকে চুড়িদারের থ্রি পিস রয়েছে।

এছাড়াও সারা বছর এখানে লেডিস কাঁথা ওয়ার্কের পিওর তসরের স্টোল পাওয়া যায়। ৯১০ টাকা থেকে দাম শুরু। ১৭০০ টাকা থেকে মিলবে পুরুষ ও মহিলার কাশ্মীরি শাল।

ছোট্ট সোনামণিদের জন্যও এখানে রয়েছে আকর্ষণীয় রেডিমেড শাড়ি। রয়েছে ১-১২ বছর বয়স পর্যন্ত ১৬-৩৪ সাইজে। মূলত ফ্যাব্রিক বেনারসি এবং কটন বেসড। ব্লাউজ সমেত এই ধরনের শাড়ির দাম শুরু হয় ৭০০ টাকা থেকে। তবে কোয়ালিটি অনুযায়ী দাম বাড়ে। এছাড়াও ৫-১২ বছরের বাচ্চা মেয়েদের লেহেঙ্গা পাওয়া যায়, দাম শুরু ১৬০০ টাকা থেকে।

এক কথায় বলতে গেলে, এক ছাদের নীচে এত কিছুর আয়োজন, যা চাক্ষুষ না করলে বিশ্বাসই হয় না! সবচেয়ে বড় ব্যাপার, সাধ ও সাধ্যের এক অপূর্ব মেলবন্ধন, যা এঁদের ইউএসপি।

যোগাযোগ: ৭০৪৪০৮৮৪০৮

নববর্ষে হাতে বোনা শাড়িকে প্রাধান্য দিচ্ছেন ডিজাইনার চৈতালি ঘোষ

You might also like