Latest News

স্প্রিন্টার দ্যুতি চাঁদের দ্যুতিতেই উজ্জ্বল সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডস, তিনিই নতুন ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর

দ্য ওয়াল ব্যুরো: গয়নার রিটেল চেন সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডস কোম্পানির নতুন ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর হিসেবে স্বাক্ষর করলেন আন্তর্জাতিকভাবে প্রশংসিত ভারতীয় স্প্রিন্টার এবং মহিলাদের ১০০ মিটারে বর্তমান জাতীয় চ্যাম্পিয়ন দ্যুতি চাঁদ। তিনি প্রোমোট করবেন ‘এভারলাইট’ সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডসের হালকা গয়নার সম্ভার।

পাশাপাশি, দেশের সবচেয়ে বড় এই রিটেল চেন এলজিবিটিকিউ কমিউনিটির ‘প্রাইড মান্থ’ও উদযাপন করছে। এলজিবিটিকিউ সমাজকে সম্মান জানাতে এক নতুন ক্যাম্পেন চালু করেছে সেনকো, #MorePowerToPride #loveislove। এই উদযাপনের অংশ হিসাবে সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডস এভারলাইট গয়নার এক নতুন সম্ভারও প্রকাশ করেছে, যার নাম ‘লাভ ইজ লাভ কালেকশন’।

২০১৯ সালে সেনকো গোল্ড এই উদযাপের অংশ হিসেবে তৃতীয় লিঙ্গের মানুষদের নিয়ে অনন্য এক ফ্যাশন শোয়ের আযোজন করেছিল। তখনই লঞ্চ করা হয়েছিল ‘প্রাইড কালেকশন’ও। সেই ফ্যাশন শোয়ের নেতৃত্বে ছিলেন স্বনামধন্য প্রফেসর এবং এলজিবিটিকিউ অ্যাক্টিভিস্ট ডঃ মানবী বন্দ্যোপাধ্যায়।

শুভঙ্কর সেন, সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডসের সিইও এবং কোম্পানির নতুন ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর দ্যুতি চন্দ এক ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে গয়নার এই নতুন সম্ভার প্রকাশ করলেন। লাভ কালেকশন সোনা ও হীরের আংটি, কানের দুল, হার ও পেনডেন্টের এক সিগনেচার সম্ভার। তাঁরা জানালেন, এই গয়নাগুলো প্রতিদিনের জামাকাপড়ের সাথে যেমন পরা যায়, তেমনি পার্টি ওয়্যার হিসাবেও পরা যায়। সোনা আর হীরে, দুরকম গয়নার জন্যই এর দাম শুরু ১২ হাজার টাকা থেকে।

এই উপলক্ষে শুভঙ্কর সেন বললেন, “সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডস সবসময়ই গয়না এবং জীবন– এই দুই নিয়েই প্রগতিশীল মানসিকতার পরিচয় দেওয়ার চেষ্টা করে। এই কঠিন সময়ে আমাদের এভারলাইট ব্র্যান্ডের মাধ্যমে আমরা আশার কিরণ ছড়িয়ে দিতে চাই। নতুন ‘লাভ ইজ লাভ’ কালেকশনের অনুপ্রেরণা হল বিশুদ্ধ ভালবাসা আর হৃদয়। কারণ এই দুঃসময়ে বন্ধুবান্ধব আর পরিবারের ভালবাসাই আমাদের ইতিবাচক থাকতে সাহায্য করছে।”

পাশাপাশি শুভঙ্করবাবু আরও বলেন, “আমরা দ্যুতিকে ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর হিসেবে পেয়েও সম্মানিত বোধ করছি। তিনি একজন প্রতিভাবান অ্যাথলিট, যাঁকে নিয়ে আমাদের দেশ গর্বিত। আগামী সপ্তাহে আরও বড় উড়ান নেবেন তিনি। আমরা তাঁকে শুভকামনা জানাই। আমরা আত্মবিশ্বাসী, আগামীর অলিম্পিক্সেও আবার আমাদের দেশকে গর্বিত করবেন দ্যুতি।”

দ্যুতি চাঁদ বললেন, “সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডসের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর হয়ে আমি খুব খুশি। আমার মনে হয় একজন অ্যাথলিটের সাথে গয়নার ব্র্যান্ডের মিলিত হওয়া সত্যিই বিশেষ ঘটনা। আমি খুশি, যে সেনকো গোল্ড আমার খেলায় সাহায্যও করবে। আমাদের এই গাঁটছড়ার ব্যাপারে আমরা আশাবাদী। এই প্যানডেমিক আর অলিম্পিক্স শেষ হলে আমি সেনকো গোল্ড অ্যান্ড ডায়মন্ডসের এখটা শোরুমে একবার যেতে চাই।”

You might also like