Latest News

প্রতিযোগীদের প্রশংসা করতে বলা হয়েছিল! ইন্ডিয়ান আইডল বিতর্কে অমিত কুমারের সুরেই সুনিধি

দ্য ওয়াল ব্যুরো: অমিত কুমারের পর সুনিধি চৌহান। ইন্ডিয়ান আইডল ১২কে ঘিরে চলতি বিতর্কে কিশোর কুমার পুত্রের সুরেই মুখ খুললেন বর্তমান সময়ের নামী গায়িকা। বললেন, প্রতিযোগীরা যেমনই গান করুন না কেন, তাদের প্রশংসা করতে হবে, এমনটাই বলে দেওয়া হয়েছিল তাঁকে।
সম্প্রতি অমিত কুমার এই গানের প্রতিযোগিতার একটি এপিসোড সম্পর্কে তীব্র আপত্তি জানান। সেই এপিসোডে বিচারক, প্রতিযোগীরা প্রবাদপ্রতিম গায়ক, অভিনেতা কিশোর কুমারের প্রতি শ্রদ্ধা জানান। কিন্তু পরে বিস্ফোরক অভিযোগ করেন অমিত কুমার। বলেন, তাঁকে বলে দেওয়া হয়েছিল, প্রতিযোগীরা ভাল, মন্দ, যেমনই গাইবেন, সবাইকে উচ্ছ্বসিত, ঢালাও সার্টিফিকেট দিতে হবে।
সুনিধি ইন্ডিয়ান আইডলের ৫ ও ৬ নম্বর এপিসোডের বিচারক হয়েছিলেন। সংবাদমাধ্যমকে তিনি বলেছেন, প্রত্যেকের প্রশংসা করতে বলা হয়েছিল, এমনটা নয়। তবে, হ্যাঁ, এটা বলে দেওয়া হয়, আসল ব্যাপার ওটাই। তাই আমি উদ্যোক্তাদের দাবি মেটাতে না পেরে সরে আসি। এখন আমার কোনও রিয়েলিটি শোয়ে বিচারক না হওয়ার অন্যতম কারণ এটা। শোয়ের নির্মাতারা যা চাইবেন, সেটা করে যেতে পারবেন না তিনি, জানিয়েছেন সুনিধি।

তবে সব রিয়েলিটি শো সম্পর্কেই সুনিধির স্পষ্ট মত, এধরনের শো সঙ্গীতের দুনিয়ায় প্রতিষ্ঠা প্রত্যাশীদের কাছে একটা মঞ্চ হয়ে উঠেছে। কিন্তু  এতে ক্ষতি হচ্ছে শুধু শিল্পীদেরই। রাতারাতি একজন প্রচুর নাম করে ফেললেন, কিন্তু তাঁর আরও ভাল করার তাগিদটা মরে যায়। ওদের কেউ কেউ এখনও কঠিন পরিশ্রম করেন, কিন্তু চটজলদি খ্যাতি অধিকাংশেরই ক্ষতি করে।  এটা প্রতিযোগীদের দোষ বলব না, টিআরপি-ই ওদের এমন জায়গায় এনে দাঁড় করায়। কোনও কোনও সময় প্রতিযোগীদের গান বিকৃত করা হয়, কিছু কিছু গায়ক-গায়িকার গানে ভুল-ত্রুটি থাকে, এপিসোড সম্প্রচারিত হওয়ার  আগে সব শুধরে নেওয়া হয় বলেও জানান সুনিধি।

কয়েকদিন আগে ইন্ডিয়ান আইডলের প্রথম সিজনের বিজয়ী গায়ক অভিজিত্ সাবন্তও এধরনের শোয়ের সমালোচনা করে বলেন, গায়কদের ট্যালেন্ট তুলে ধরার পরিবর্তে সেখানে নকল ভালবাসা,  গরিবির কাহিনি দেখানো হয়।

You might also like