শুক্রবার, জুন ২১

আচরণবিধি লঙ্ঘন, যোগীকে ৭২ ঘণ্টা, মায়াকে ৪৮ ঘণ্টা প্রচার করতে নিষেধ

দ্য ওয়াল ব্যুরো : যে রাজনীতিকরা আইন ভাঙছেন, তাঁকে আইন মানতে বাধ্য করার ক্ষমতা নির্বাচন কমিশনের আছে। কিন্তু নির্বাচন কমিশন সেকথা জানে বলে মনে হয় না। এই বলে সোমবার কটাক্ষ করেছে সুপ্রিম কোর্ট। তারপরেই নির্বাচন কমিশন নির্দেশ দিল, আদর্শ আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ তিনদিন ভোটের প্রচার করতে পারবেন না। বিএসপি নেত্রী মায়াবতীকেও একই অভিযোগে দু’দিন প্রচার করতে নিষেধ করা হয়েছে।

নির্বাচন কমিশন নির্দেশ দিয়েছে, মঙ্গলবার সকাল ছ’টা থেকে টানা ৭২ ঘণ্টা যোগী কোনও জনসভা করতে পারবেন না। মিডিয়ার সঙ্গেও কথা বলতে পারবেন না। মায়াবতীর বিরুদ্ধেও একই নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। তবে তা ৪৮ ঘণ্টার জন্য।

কিছুদিন আগে যোগী ভারতের সেনাবাহিনীকে ‘মোদীজি কা সেনা’ বলে বিতর্কের সৃষ্টি করেছিলেন। তিনি বলেছিলেন, কংগ্রেসিরা জঙ্গিদের বিরিয়ানি খাওয়ায়। কিন্তু মোদীজির সেনা তাদের গুলি আর বোমা দিয়ে অভ্যর্থনা জানায়। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ভি কে সিং পর্যন্ত ওই মন্তব্যের বিরোধিতা করে বলেন, আর্মি কোনও ব্যক্তির সম্পত্তি নয়। তা জাতির সম্পত্তি।

Comments are closed.