শনিবার, মার্চ ২৩

স্বীকারে মিলায়ে বস্তু

সরকার বাহাদুরের তরফে আইন ও শান্তি শৃঙ্খলা রক্ষার প্রধানতম অভিভাবক সোমবার সন্ধ্যায় রাজ্যবাসীকে আশ্বস্ত করার সুরে বললেন, একটি দুটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা ছাড়া পঞ্চায়েত ভোট মোটের উপর শান্তিপূর্ণ হয়েছে। আর সে দিন, সারা দিনে, অকালমৃত্যু অনেকের হয়েছে ঠিকই, এবং যে কোনো মৃত্যুই নিদারুন পরিতাপের বিষয়, তবে এটাও ঠিক সবার মৃত্যুই ভোটের হানাহানির কারণে, সেটাও মোটেই সত্য নয়। যাঁদের কথার সঙ্গে সঙ্গতি রেখে পূর্ব-আলোচিত আইনরক্ষকের পক্ষ থেকে সে দিনের এই অভয় বাণী, শাসকদলের সেই নেতা নেত্রীরা তো ভোটের আগে পরে সব সময়েই বলেছেন, এ সব মিথ্যে, অতিরঞ্জিত অপপ্ৰচার। খতিয়ান দিয়ে তাঁরা বলেছেন, তাঁদের অমুক সংখ্যক সমর্থক সে দিন প্রাণ হারিয়েছেন আক্রান্ত হয়ে। এমন কথা কেউ বলবে না যে তাঁদের বিরোধীরা সবাই ধোয়া তুলসীপাতা। অহিংসার পূজারী। তবু অধুনা ক্ষমতাসীন নেতাদের এই ‘ডিনায়াল মোড’ এ চলে যাওয়া দশক কাল আগে আলিমুদ্দিন-এর অনিলদার কথা স্মরণ করিয়ে দেয়। অবাম কোন রাজনৈতিক কর্মী খুন হলে এক টিপ নস্যি নিয়ে যিনি নিয়ম করে বলতেন, ও সব ওদের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব। আমরা ভাই কিছু জানি না।

তাঁরা বলতেন ঠিক আছে, কিন্তু মানুষ কি বিশ্বাসদাদের সব কথা বিশ্বাস করত? আমজনতা হয় তো প্রতিটা বিবৃতির প্রতিবাদে সমষ্টিগত ভাবে সরব হয়নি। কিন্তু মনে মনে যা ভাবার বা বোঝার, ভেবেছে ও বুঝেছে। তাও তো তখন জীবনের রন্ধ্রে রন্ধ্রে ঢুকে যাওয়া সোশ্যাল মিডিয়া ছিল না। প্লেগের গতিতে হোয়াটস অ্যপে ছড়িয়ে পড়ত না থাপ্পড় কশানোর, বাঁশ পেটা করার, ছুরি চালানোর, বোমা মারার, গুলি করার ছোট ছোট অসংখ্য ভিডিও ক্লিপ।

এ সব দেখে মানুষ কিন্তু নিজের মতো করে যা ভাবার ভাববেই। জোর করে তাকে অন্য কিছু  ভাবানো কোনো কালে, কোনো জমানায় যায়নি, বোধ হয় যাবেও না।

তার চেয়ে বোধ হয় সহজ সত্যি কে সহজ ভাবে স্বীকার করে নেওয়াই ভাল। অনেক বড় দল এখন। অনেক তার শাখা প্রশাখা। অনেক তার স্তর। দল উপদল, তস্য দল। অনেক অনেক সুবিধে-প্রত্যাশী। অনেক তাঁদের খাঁই। লক্ষ লক্ষ কোটি কোটি টাকার গ্রামোন্নয়ন-খাজানা থেকে উপার্জন বাড়াতে গেলে পেশী শক্তি তাঁদের বাড়াতেই হবে। লোক লস্কর কে দম দিয়ে নামাতেই হবে। এ সব এত ব্যাপক চেহারা নিয়ে নিয়েছে, যে এর রাশ ধরা চাট্টিখানি কথা নয়।

সহজ স্বীকারোক্তিতে মিলায়ে বস্তু, তর্কে বহুদূর। স্বীকার, দুঃখপ্রকাশ, ক্ষমা প্রার্থনা কোনো ব্যক্তি বা দলের সম্মান ও গ্রহণযোগ্যতা বাড়ায় বৈ কমায় না।

 

Shares

Leave A Reply