শনিবার, মে ২৫

প্রধানমন্ত্রীর সভায় যাওয়ার ‘অপরাধে’ বিজেপি কর্মীদের আক্রমণ, অভিযুক্ত তৃণমূল

দ্য ওয়াল ব্যুরো: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সভা থেকে ফেরার পথে বিজেপির কর্মী-সমর্থকদের উপর হামলার অভিযোগ উঠল তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে। ঘটনায় বিজেপি কর্মীদের ব্যাপক মারধর করে কয়েকটি গাড়ি ভাঙচুরের অভিযোগ উঠেছে। যদিও তৃণমূল কংগ্রেস সেই অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

বুধবার, বীরভূমের ইলামবাজারের নির্বাচনী জনসভায় এসেছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সেখানে জেলার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে কয়েক লাখ কর্মী সমর্থক উপস্থিত ছিলেন। এর পরে সন্ধ্যায় বিজেপি সমর্থকদের কয়েকটি গাড়ি সিউড়ি দুই ব্লকের হাটজন বাজার এলাকায় আসতেই হামলার শিকার হয়।

বিজেপি নেতৃত্বের দাবি, ঘটনায় এক বিজেপি কর্মীর মাথা ফেটেছে এবং আর এক জনের হাত ভেঙেছে। কেন্দুয়া গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান শেখ জালাল উদ্দিনের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে এই হামলার।

যদিও শেখ জালাল উদ্দিন সেই অভিযোগ অস্বীকার করে জানিয়েছেন, এই এলাকায় বিজেপির কোনও প্রভাবই নেই। তবু কয়েকটি বাড়িতে গিয়ে বিজেপির কর্মীরা টাকা পয়সা বিলি করে প্রচার করতে যায়। তাতেই এলাকাবাসীরা ক্ষুব্ধ হয়ে মারধর করেছে বিজেপি কর্মী সমর্থকদের উপর।

অন্য দিকে বিজেপির দাবি, শুধুমাত্র প্রধানমন্ত্রীর জনসভাতে যাওয়ার অপরাধেই তাদের গাড়ি আটকে মারধর করা হয়েছে। এই ঘটনার প্রতিবাদে বীরভূম লোকসভা কেন্দ্রে বিজেপি প্রার্থী দুধকুমার মন্ডল প্রশাসন ভবন মোড়ে কর্মীদে নিয়ে অবরোধ শুরু করেন দুষ্কৃতীদের গ্রেফতারের দাবিতে। ঘটনাস্থলে সিউড়ি থানায় বিশাল পুলিশবাহিনী।

Shares

Comments are closed.