শুক্রবার, নভেম্বর ১৬

সমুদ্রে ভাসছে পুতুল, তুলতে যেতেই হেঁচে উঠল সে! অবাক নিউজ়িল্যান্ডের মৎস্যজীবী!

দ্য ওয়াল ব্যুরো: মাছ ধরতে সমুদ্রে নামবেন বলে প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন মৎস্যজীবীরা। হঠাৎই তাঁরা দেখেন, একটি বড়সড় পুতুল ভেসে রয়েছে ঢেউয়ে। নিছক কৌতূহলেই পুতুলটিকে তুলবেন বলে এগিয়ে যান এক মৎস্যজীবী। আর তা করতে গিয়েই চরম বিস্ময়! হেঁচে ফেলল পুতুল!

গত মাসের ২৬ তারিখে নিউজ়িল্যান্ডের সমুদ্রে ঘটা এই ঘটনা সামনে এসেছে সম্প্রতি। ঘটনাটিকে ‘মিরাক্যুলাস’ বলে ব্যাখ্যা করেছেন সকলে। আদতেই একটি দুর্ঘটনা, যা কাকতালীয় ভাবে উদ্ধারের গল্পে বদলে গিয়েছে গাস হাট নামের ওই মৎস্যজীবীর কারণে।

গাস হাট জানিয়েছেন, তাঁরা মাছ ধরতে যাওয়ার জন্য তৈরি হচ্ছিলেন সকালে। প্লেন্টি সাগরের নর্থ আইল্যান্ডের দিকে চোখ পড়তে তাঁর হঠাৎই মনে হয় একটি পুতুল ভাসছে জলে। ঢেউয়ের তালে উঠছে-নামছে। ‘‘ভেবেছিলাম একটা পুতুল। শুধু কৌতূহলেই আমি এগিয়ে গিয়ে পুতুলের হাতটা ধরি। তখনও কিছু মনে হয়নি। মুখটাও পুরো পোর্সেলিনের মতো লাগছিল, চোখ নড়ছিল না। ছোট ছোট চুল মাথা ভর্তি। ঠান্ডা শরীর। আমি জল থেকে তুলতেই ও একটা হাঁচি দেয়। আমি অবাক! এ তো একটা জ্যান্ত শিশু!”

এর পরে বোঝা যায়, পুতুল ভেবে দেড় বছরের এক শিশুকে উদ্ধার করেছেন গাস হাট। অজান্তেই। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, তার নাম মালাচি রিভ। বাবা মায়ের সঙ্গে বিচ-সাইড ক্যাম্পে এসেছিল সে। সকলের অলক্ষে তাণবুর চেন খুলে ক্যাম্প থেকে বেরিয়ে কখন সমুদ্রের ধারে চলে গিয়েছিল, কেউ জানতে পারেনি।

এক-পা, দু-পা করে এগোতে এগোতেই জলে ভেসে যায় সে। হাবুডুবু খায় বেশ কিছু ক্ষণ, তার পরে নিস্তেজ হয়ে পড়ে। হাল্কা শরীর, চট করে ডুবে যায়নি সমুদ্রের ঢেউয়ে। এই অবস্থায় ভাগ্যিস দেখে ফেললেন গাস! তিনি বলেন, ‘‘শিশুটি জলের স্রোতে ওঠানামা করতে করতে ভেসে যাচ্ছি‌ল। আর কয়েক মিনিট দেরি হলেই হয়তো ওকে বাঁচাতে পারতাম না। কাকতালীয় ভাবে বেঁচে গেল ও। খুব ভাগ্যবান শিশু।”

নিউজিল্যান্ডের ‘ওয়াটার সেফটি চিফ এগজ়িকিউটিভ’ জন্টি মিলস বলেন, ‘‘মিলাচির ঘটনাটা যে কোনও মুহূর্তে দুর্ভাগ্যজনক হতে পারত। গত বছরে এই এলাকায় কিছু শিশু ডুবেও গিয়েছিল। জলে পড়ে গিয়ে বিপদ ঘটাতে একটা বাচ্চার এক মিনিটও লাগে না। বড়দেরই প্রতি মুহূর্তে সচেতন থাকতে হবে, আগলে রাখতে হবে।”

Shares

Comments are closed.